আইএসএলে পরপর তিন ম্যাচ জিতে দুরন্ত শুরু করেছিল এটিকে মোহনবাগান। কিন্তু শেষ দুই ম্যাচে একটি হার ও একটি ড্রয়ের সৌজন্যে কিছুটা চাপে রয়েছে অ্যান্টোনিও লোপেজ হাবাসের দল। বুধবার এফসি গোয়ার বিরুদ্ধে জয়ের রাস্তায় ফিরতে মরিয়া সবুজ মেরুণ ব্রিগেড। অপরদিকে, শেষ ম্য়াচে ওড়িশা বিরুদ্ধে জয়ের ফিরেছে জুয়ান ফেরান্ডোর দল। এটিকে মোহনবাগানের বিরুদ্ধেও তিন পয়েন্টের জন্য ঝাঁপাতে চলেছে এফসি গোয়া।

জয়ের লক্ষ্যে হাবাস ব্রিগেড-
এফসির গোয়ার বিরুদ্ধে নামার আগে কিন্তু আত্মবিশ্বাসের সুর শোনা গেল বাগান কোচ হাবাসের গলায়। ৫ ম্যাচে ১০ পয়েন্ট নিয়ে বর্তমানে লিগ টেবিলে তৃতীয় স্থানে রয়েছে সবুজ-মেরুণ শিবির। দলের রক্ষণ নিয়ে কিছুটা চিন্তায় রয়েছেন হাবাস। কারণ যে দলটা প্রথমম ৩ ম্য়াচে একটিও গোল খায়নি, সেই দলটাই শেষ ২ ম্যাচে ৩ গোল হজম করতে হয়েছে। তবে গোয়ার বিরুদ্ধে তিরি দলে ফেরায় বাড়তি ভরসা জোগাচ্ছে এটিকেএমবি ম্য়ানেজমেন্টকে। তবে মাঝমাঠ ও আক্রমণ বিভাগের খেলা নিয়ে খুব একটা অসন্তুষ্ট নন হাবাস। সবুজ-মেরুণ কোচ বরঞ্চ দলের খারাপ পারফরমেন্সের জন্য বলেছেন,'সমস্যা অন্য জায়গায়। অনেক দিন পরে সবাই খেলতে নেমেছে। চোট আঘাতের সমস্যা বাড়ছে দলে। সেরে ওঠার সময় কম। প্রতিদিনই কেউ না কেউ চোট পাচ্ছে।'তবে গোয়ার বিরুদ্ধে জয়ে ফেরার জন্য মরিয়া রয় কৃষ্ণা, মনবীর সিং, প্রীতম কোটালরা।

লড়াই দিতে প্রস্তুত গোয়া-
অপরদিকে, ওড়িশার বিরুদ্ধে এফসি গোয়া শেষ ম্য়াচে জয় পেলেও, প্রতিযোগিতায় এখনও নিজেদের চেনা ছন্দে ফিরতে পারেনি এফসি গোয়া দল। বর্তমানে ৫ ম্যাচে ৮ পয়েন্ট নিয়ে লিগ টেবিলের ৮ নম্বরে রয়েছে জুয়ান ফেরান্ডোর দল। ইগর অ্যাঙ্গুলো ও ব্রেন্ডন ফার্নান্দেজের জুটি দারুণ জমে গিয়েছে। উইং থেকে বল বাড়াচ্ছেন ফার্নান্দেজ। অ্যাঙ্গুলো সেগুলো থেকে গোল করেছেন। ফলে এই জুটির উপর ভরসা করেই হাবাসের দলকে মাত দেওয়ার ঘুঁটি সাজাচ্ছেন এফসি গোয়া কোচ। এটিকে মোহনবাগানকে হারিয়ে লিগ টেবিলের উপরের দিকে উঠতে মরিয়া জুয়ান ফেরান্ডো অ্যান্ড ব্রিগেড।

ম্যাচ প্রেডিকশন-
শেষ দুই ম্য়াচে জয় না পেলেও, দলগত শক্তির বিচারে এফসির গোয়ার থেকে এটিকে মোহনবাগানকেই এগিয়ে রাখছেন ফুটবল বিশেষজ্ঞরা। ফলে বুধবারের ম্য়াচে হাড্ডাহাড্ডি লড়াই হলেও, হাবাসের দলেরই জেতার সম্ভাবনা বেশি।