আইএসএলের চতুর্থ ম্যাচে বৃহস্পতিবার মাঠে নামছে এসসি ইস্টবেহঙ্গল। প্রতিপক্ষ এটিকে মোহনবাগানের বিজয় রথ থামিয়ে দেওয়া জামশেদপুর এফসি। টানা তিনটি ম্যাচ হেরে এমনিতেই প্রতিযোগিতায় চাপে রয়েছে রবি ফাউলারের দল। প্রতিযোগিতার প্রথম জয়ের খোঁজে লাল-হলুদ শিবির। বর্তমানে লিগ টেবিলে একেবারে শেষে রয়েছে এসসি ইস্টবেঙ্গল। অপরদিকে এটিকে মোহনবাগানকে হারিয়ে প্রতিযোগিতায় ঘুড়ে দাঁড়িয়েছে ওয়েন কোয়েলের জামশেদপুর এফসি। 

জয়ের খোঁজে লাল-হলুদ শিবির-
পরপর তিন ম্য়াচে দলের হতাশা পারফরমেন্স নিয়ে উদ্বিগ্ন থাকলেও, এখনও দলের উপর পুরোপুরি আস্থা হারাচ্ছেন না রবি ফাউলার। লাল-হলুদ কোচ মনে করেন, গোল করতে পারলেই এই দলই সম্পূর্ণ অন্যকরকম ফুটবল খেলবে। তবে শুধু স্ট্রাইকার নয়, রক্ষণ ও মাঝমাঠের ধরাবাহিকতার অভাবের কারমেই ভুগতে হয়েছে রবি ফাউলারের দলকে। তাই জামশেদপুরের বিরুদ্ধে নামার আগে দলের আত্মবিশ্বাস বাড়াতে ও দলবদ্ধভাবে ফুটবল খেলার উপরই জোর দিয়েছে লাল-হলুদ কোচ। একইসঙ্গে এটিকে মোহবাগানের বিরুদ্ধে জোড়া গোল করা ও প্রতিযোগিতার প্রতি ম্য়াচে গোল করা তারকা স্ট্রাইকার নেরিজেস ভালসকিসকে নিয়ে যথেষ্ট চিন্তিত রয়েছেন রবি ফাউলার। রক্ষণকে বাড়তি সতর্ক থাকতেও বলেছেন তিনি। তবে কঠিন প্রতিপক্ষ হলেও, চতুর্থ ম্যাচেই প্রথম পয়েন্ট পেতে মরিয়া লাল-হলুদ প্লেয়াররা।

আত্মবিশ্বাসী জামশেদপুর-
অপরদিকে, কলকাতার এক প্রধানকে হারানোর পর, অপর প্রধানের থেকেও পয়েন্ট ঘরে তুলতে চাইছে ওয়েন কোয়েলের দল। ভালসকিস দলের প্রধান হাতিয়ার হলেও, দলগত ফুটবল খেলেই রবি ফাউলারের দলের বিরুদ্ধে পয়েন্ট নিতে চাইছেন জামশেদপুর এফসির কোচ। ভালসকিস ছাড়াও রয়েছেন রক্ষণে স্কটল্যান্ডের মাদারওয়েল এফসি ক্লাবের অধিনায়কত্ব করে আসা স্টপার পিটার হার্টলি। আক্রমণে ‍‘ফ্রি-ম্যান’ ব্রাজিলীয় ফরোয়ার্ড আলেক্সান্দ্রে লিমা। আর ডান প্রান্তে ভারতীয় জ্যাকিচন্দ সিংহ। সব লাল-হলুদের বিরুদ্ধে জয়ের জন্য ঝাঁপাতে চলেছে জামশেদপুর এফসি।

ম্যাচ প্রেডিকশন-
প্রতিযোগিতায় ৪ ম্যাচে ৫ পয়েন্ট নিয়ে লিগ টেবিলের ৭ নম্বরে রয়েছে জামশেদপুর। শেষ ম্যাচে এটিকে মোহনবাগানকে হারিয়ে আত্মবিশ্বাসও অনেকটা বেড়েছে। উল্টো দিকে তিন ম্যাচে টানা হার ও ৭ গোল হজম করে লিগ টেবিলের শেষে রয়েছে এসসি ইস্টবেঙ্গল। ফলে বুধবারের ম্যাচে কোয়েলের দলকেই এগিয়ে রাখছেন ফুটবল বিশেষজ্ঞরা।