Asianet News Bangla

আদৌও কি দায়িত্বশীল বিরোধিতা হচ্ছে, শুভেন্দু অধিকারীর সিদ্ধান্তে দ্বিধাবিভক্ত খোদ বিজেপিই

রাজভবনের সামনে দাঁড়িয়ে সাংবাদিকদের সামনে একাধিক অভিযোগ করেন শুভেন্দু অধিকারী। তিনি বলেন অনৈতিকভাবে মুকুল রায়কে পাবলিক অ্যাকাউন্টস কমিটি চেয়ারম্যান নিযুক্ত করেছে শাসকদল। 
 

Being responsible opposition, BJP itself is divided over the decision of Shuvendu Adhikari bpsb
Author
Kolkata, First Published Jul 13, 2021, 10:10 PM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

রাজভবন থেকে বেরিয়ে একাধিক অভিযোগ স্বভাবসিদ্ধ ভঙ্গীতে বলে গেলেন বিধানসভার বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী। নিলেন বেশ কিছু সিদ্ধান্ত। কিন্তু তা কি আদৌও কাজে দেবে? দ্বিধাবিভক্ত খোদ বিজেপিই। কারণ বিজেপি মনে করছে বিরোধিতার নামে বিভিন্ন ক্ষেত্র থেকে বয়কট করে সরে আসার অর্থ ফাঁকা মাঠে তৃণমূলকে গোল করতে দেওয়ার সুবিধা করে দেওয়া। তাই বিরোধী দলনেতার অভিযোগগুলি ও সিদ্ধান্তগুলি রাজ্য বিজেপির ক্ষেত্রে বুমেরাং হয়ে আসতে পারে বলে দাবি বিজেপি নেতাদের একাংশের। 

এদিন রাজভবনের সামনে দাঁড়িয়ে সাংবাদিকদের সামনে একাধিক অভিযোগ করেন শুভেন্দু। তিনি বলেন অনৈতিকভাবে মুকুল রায়কে পাবলিক অ্যাকাউন্টস কমিটি চেয়ারম্যান নিযুক্ত করেছে শাসকদল। এই পদক্ষেপের প্রতিবাদে বিজেপির সদস্যরা সরে দাঁড়াবেন অন্যান্য কমিটিগুলি থেকে। এমনই সিদ্ধান্ত নিয়েছেন শুভেন্দু। এই সিদ্ধান্তে একেবারেই খুশি নন বিজেপির একাংশ নেতা। 

বিরোধিতা করতে গিয়ে বিজেপি নিজের পায়ে কুড়ুল মারল বলে মনে করছে গেরুয়া শিবির। মঙ্গলবার যে অভিযোগ রাজ্যপালের কাছে জমা পড়ল, তার প্রতিলিপি রাষ্ট্রপতি ও লোকসভার স্পীকার ওম বিড়লার কাছে পৌঁছে যাবে বলে জানিয়েছেন শুভেন্দু অধিকারী। তবে দিল্লি দরবার করে বাংলায় বিজেপি পালে হাওয়া লাগানো যাবে কীনা, সে ব্যাপারে সন্দিহান বঙ্গ বিজেপি নেতারা। 

এই সূত্র ধরেই সরব হয়েছেন রাজ্য বিজেপি সভাপতি দিলীপ ঘোষ। এদিন তিনি বলেন  "অনেকেই প্রকাশ্যে অনেক কথা বলছেন, যা দলের বাইরে বলা ঠিক নয়। এ ব্যাপারে আমি কেন্দ্রীয় নেতৃত্বকে জানিয়েছি। এ ধরনের মন্তব্য দলের পুরনো কর্মী, যাঁরা শৃঙ্খলাপরায়ণ তাঁদের মনোবলে আঘাত করছে।" তবে দলে থেকে প্রকাশ্যে সরব হয়েছেন অনেকেই। সেই তালিকাটা নেহাত কম নয়। রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায় থেকে শুরু করে বেসুরো মন্তব্য করেছেন অনেকেই। যদিও দিলীপ ঘোষ কারও নাম উল্লেখ করেননি। 

তবে তাহলে কি এবার তাঁদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেবে দল? এ বিষয়ে তিনি জানিয়েছেন, "এ ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেওয়ার জন্য দলের শৃঙ্খলারক্ষা কমিটি রয়েছে। কী ব্যবস্থা নেবে, কাদের বিরুদ্ধে নেবে তা দলের উচ্চ নেতৃত্ব ঠিক করবেন।" পাশাপাশি তিনি এও বলেন যে, রাজ্যে দল প্রত্যাশা মতো ফল করতে না পারার জন্য হয়তো অনেকেই হতাশ হয়েছেন। তার জেরেই এই ধরনের মন্তব্য করে ফেলেছেন। 

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios