পুজোর আগে সুখবর ডানলপের কর্মীদের জন্য়। এবার হুগলির সাহাগঞ্জে বন্ধ ডানলপ কারখানার কর্মীরাও তাদের বকেয়া পাবেন। ইতিমধ্য়েই কারখানার ১৪১৫ জন কর্মীর বকেয়া পাওনা মেটানোর অনুমোদন এসেছে। কদিন আগেই এ বিষয়ে অফিশিয়াল চিঠি গিয়েছে কারখানার সিটু নেতা জগবন্ধু সাহার কাছে।

জানা গিয়েছে, কর্তৃপক্ষের ওই চিঠিতে ইউনিয়ন গুলির পক্ষ থেকে কর্মীদের পাওনা মেটানোর আবেদন করা হয়েছিল। সব মিলিয়ে ১৪১৫ জন কর্মীর পাওনা বাবদ ১৯ কোটি ৪০ লক্ষ ৫০ হাজার টাকা হয়েছে। যদিও অনুমোদনের চিঠি হাতে এলেও‌ পাওনা মেটানো হবে কবে তা জানা যায়নি। 

রাজ্য়ের কর্ম সংস্কৃতির ইতিহাস বলছে, ২০১৩ সালে কলকাতা হাইকোর্ট ডানলপ কারখানা গুটিয়ে সম্পত্তি বিক্রি করার নির্দেশ দিয়েছিল। বলা হয়েছিল, সম্পত্তি বেচে ওই শ্রমিক কর্মচারীদের বকেয়া পাওনা মেটানোর নির্দেশ দিয়েছিল। এজন্য অফিশিয়াল লিকুইডেটর নিয়োগ করা হয়েছিল। তারপর কাগজে বিজ্ঞাপন দিয়ে ডানলপ এর কাছ থেকে কাদের কি পাওনা আছে তাদের আবেদন করতে বলা হয়েছিল।

পরবর্তীকালে ডানলপ কারখানার তিন ইউনিয়ন মিলে কর্মীদের পাওনার হিসেব দিয়েছিল। যা জানতে পেরে লিকুইডেটর তাদের শুনানির জন্য় ডাকে । ‌ পিএফ বাবদ পাওনা বাদ দিলেও বাকি পাওনা তাদের মিটিয়ে দেওয়া কথা শুনানিতে বলা হয়। এবার সেই পাওনা মেটানোতে সম্মতি জানিয়ে চিঠি এলো।