খাস কলকাতায় এবার ছেলের হাতে খুন হয়ে গেলেন এক বৃদ্ধ! অভিযুক্তকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। দেহটি পাঠানো হয়েছে ময়নাতদন্তে। ঘটনাটি ঘটেছে বেনিয়াপুকুর এলাকায়।

বেনিয়াপুকুরের আহিড়িপুকুর এলাকায় থাকতেন রহমত আলি। তাঁর ছেলের মহম্মদ ইমরানের বয়স উনিশ বছর। স্থানীয় বাসিন্দাদের জানিয়েছেন, শুক্রবার রাতে বাবার সঙ্গে বচসায় জড়িয়ে পড়ে সে। বচসা চলাকালীন ধাতব বস্তু নিয়ে ইমরান রহমতের উপর চড়াও হয় বলে অভিযোগ। ধাতব বস্তুর আঘাতে ওই প্রৌঢ়ের মাথা থেকে গলগল করে রক্ত বেরোতে শুরু করে। মাটিয়ে লুটিয়ে পড়েন তিনি।  গুরুতর জখম অবস্থায় রহমতকে প্রথমে নিয়ে যাওয়া হয় এলাকার একটি হাসপাতালে। পরে স্থানান্তরিত করা হয় ন্যাশনাল মেডিক্যাল কলেজে। কিন্তু শেষরক্ষা হয়নি। শনিবার সকালে হাসপাতালে মারা যান রহমত আলি। তাঁর মাথা, মুখ ও চোখে গভীর ক্ষত ছিল। 

আরও পড়ুন: চোখে পেরেক নিয়ে হাসপাতালেই আটচল্লিশ ঘণ্টা, চোখ খোয়ালেন যুবক

আরও পড়ুন: মারণ রোগ কেড়েছে প্রিয়জনদের, ক্যানসার রোগীদের পাশে দাড়াতে ন্যাড়া হলেন সৌমিতা

এদিকে ঘটনাটি জানাজানি হতেই চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে বেনিয়াপুকুর এলাকায়। কিন্তু ঠিক কী কারণে এমন ঘটনা ঘটল, তা স্পষ্ট নয়। অভিযুক্ত মহম্মদ ইমরানকে গ্রেফতার করেছে।  তদন্তকারীরা জানিয়েছেন, ইমরানকে জেরা করেই গোটা ঘটনাটি জানা যাবে। মৃতের পরিবারের অন্য সদস্য ও প্রতিবেশীদের সঙ্গে তদন্তকারীরা কথা বলছেন বলে জানা গিয়েছে।