অবশেষে বাবার শরীর খারাপ নিয়ে মুখ খুললেন টলিউড অভিনেত্রী নুসরত জাহান। অভিনেত্রী-সাংসদ জানিয়েছেন,সাধারণ জ্বর নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন তাঁর বাবা।  তাঁর কোনও শ্বাসকষ্ট ছিল না। এমনকী ডায়াবিটিসের রোগী হওয়া সত্ত্বেও কোনওদিন ইনসুলিন নিতে হয়নি তাঁর বাবাকে।

এই মুহূর্তে কলকাতার সেরা ১০ খবর,যা আপনাকে ভাবাবেই.

রবিবার রাতে দক্ষিণ কলকাতার একটি বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি করা হয় নুসরতের বাবাকে। এরপর থেকেই খবর রটে যায়,করোনার উপসর্গ নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছে সাংসদের বাবা। জ্বরের সঙ্গে শ্বাসকষ্ট রয়েছে মহম্মদ শাহজাহানের। এমনকী করোনার উপসর্গ থাকায় তাঁর লালারস কোভিড১৯ পরীক্ষার জন্য় পাঠানো হয়েছে। যদিও সোমবার বাবার শারীরিক অবস্থা নিয়ে সংবাদ মাধ্য়মের সামনে আসেন নুসরত। তিনি জানান, তাঁর বাবাকে নিয়ে সংবাদ মাধ্য়মে অনেক ভুল তথ্য় রয়েছে।

"কার কার মদ্যপান করতে ইচ্ছে করছে ?" সরাসরি প্রশ্ন করে বসলেন স্বস্তিকা...

জানা গিয়েছে, আপাতত স্থিতিশীল টলিউড অভিনেত্রীর বাবা। ডায়াবেটিসের রোগী হওয়ায় প্রথম দিকে ওষুধ কাজ করতে কিছুটা সময় নিয়েছে। কিন্তু এখন জ্বর সেরে গিয়েছে। নুসরত জানিয়েছেন, করোনা পরিস্থিতির মধ্য়ে দিয়ে চলায় হাসপাতালে এলেই এখন করোনা পরীক্ষা করা হচ্ছে। সেই কারণেই বাবার লালারস পরীক্ষার জন্য় পাঠানো হয়। সাবধানতা অবলম্বন করতে গিয়েই এই কাজ করেছে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। তবে ডায়াবেটিসের রোগী  হওয়া সত্ত্বেও বাবা কোনওদিনও ইনসুলিন নিতেন না।

দেব-শুভশ্রীর রোম্যান্সের মাঝে 'পরিচালক' রাজের এন্ট্রি, নেটদুনিয়ায় ভাইরাল ছবি..

 সম্প্রতি মুখ্য়মন্ত্রীর ত্রাণ তহবিলে আর্থিক অনুদান দিয়েছিলেন এই অভিনেত্রী। এমনকী নিজে রাস্তায় নেমে করোনা মোকাবিলায় মাস্ক বিলি করেছেন। একাধিকবার সোশ্য়াল মিডিয়ায় করোনার বিরুদ্ধে প্রচারে দেখা গিয়েছে তাঁকে। জানা গিয়েছে, কদিন থেকেই জ্বরে ভুগছিলেন তাঁর বাবা। রবিবার সেকারণে ঝুঁকি না নিয়ে বাইপাসের একটি বেসরকারি হাসপাতালে ভরতি করা হয় সাংসদের বাবাকে।