করোনা আবহে থমকে গিয়েছে রাজ্যের আর্থিক গতি। দিনে দিনে ঊর্ধ্বমুখী হচ্ছে করোনা সংক্রমণের রেখাচিত্র। এই অবস্থায় সরকারের গুরুত্বপূর্ণ কাজ থেমে গিয়েছে। কিন্তু বিধানসভার অধিবেশন কোনও ভাবেই বন্ধ রাখতে চায় না রাজ্য। আর কিছু দিন পরেই শুরু হচ্ছে রাজ্য বিধানসভায় বাদল অধিবেশন। তার আগে সব বিধায়ক ও স্পিকারের করোনা পরীক্ষা করা হল বিধানসভায়।

সামনেই বাদল অধিবেশন শুরু হচ্ছে রাজ্য বিধানসভায়। করোনা আবহের মধ্য়ে গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত নিতে পারে সরকার। মহামারির আতঙ্কের আবহেও হতে পারে গুরুত্বপূর্ণ আলোচনাও। তার আগে করোনা সংক্রান্ত সতর্কতা অবলম্বন করল বিধানসভা। বাদল অধিবেশন শুরুর আগে বিধানসভায় কোভিড পরীক্ষা হল বিধায়ক সহ স্পিকারের।

বুধবার বিধানসভায় গিয়ে করোনা পরীক্ষা করান বিধায়করা। কোভিড পরীক্ষা করান বিধানসভার স্পিকার নিজেও। প্রসঙ্গত, রাজ্যে করোনা আক্রান্ত হয়ে তৃণমূল বিধায়কের মৃত্যু হয়েছে। করোনা আক্রান্ত হয়ে কোয়ারেনটাইনে থেকেছেন অনেক নেতা মন্ত্রী। সেই কারনে কোনও ঝুঁকি না নিয়ে বাদল অধিবেশনের আগে করোনা পরীক্ষা হল বিধায়কদের।