করোনার আবহে সংক্রমণ রুখতে এবার মাধ্যমিকের ফল প্রকাশ হতে পারে ভার্চুয়ালি। ইতিমধ্য়েই সেই নিয়ে বিভিন্ন শিক্ষক সংগঠনের সঙ্গে আলোচনা করেছে মধ্য়শিক্ষা পর্ষদ। সাধারণত অনলাইনের ফল প্রকাশের দিনই মার্কশিট দিয়ে দেওয়া হয়। তবে এবার সংক্রমণ যাতে ছাত্র ছাত্রীদের মধ্য়ে না ছড়ায় তার জন্য অভিভাবকদের ডেকে মার্কশিট  দেওয়ার কথা ভাবছে পর্ষদ। সেক্ষেত্রে মিড মিলের পরিষেবার মতো কোনও নির্দিষ্ট দিনে ডেকে দেওয়া হবে মার্কশিট।

 এ প্রসঙ্গে মধ্যশিক্ষা পর্ষদের সভাপতি কল্যাণময় গঙ্গোপাধ্যায় জানিয়েছেন, ভার্চুয়ালি ফল কীভাবে প্রকাশ করা যেতে পারে তা নিয়ে আলোচনা চলছে। প্রতি বছর অনলাইনে আগেই ফল প্রকাশিত হয়ে থাকে।  কিন্তু  করোনার আবহে এখন স্কুল বন্ধ। তাই কীভাবে সার্টিফিকেট  দেওয়া হবে তা নিয়ে একটা সমস্য়া তৈরি হয়েছে। 

জানা গিয়েছে, ছাত্র ছাাত্রীদের মার্কশিট দেওয়ার বিষয়ে পর্ষদের সঙ্গে ইতিমধ্যেই কথা বলেছেন শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়। মূলত, আইসিএসই ও সিবিএসই কীভাবে ফল  প্রকাশ করে  তার দিকেই নজর রেখেছে শিক্ষা দফতর। আইসিএসই ও সিবিএসই আগামী ১৫ ই জুলাইয়ের মধ্যে ফল প্রকাশ করে দিতে চলেছে। সম্প্রতি সুপ্রিম কোর্ট কে ফলাফল প্রকাশের দিনক্ষণও জানিয়ে দিয়েছে এই দুই বোর্ড। 

শিক্ষা দফতর ঘোষণা করেছে আগামী ৩১ জুলাইয়ের মধ্য়ে উচ্চ মাধ্যমিকের ফল প্রকাশ করা হবে। সেক্ষেত্রে মাধ্যমিকের ফল প্রকাশ আরও আগে হবেই বলে জানা যাচ্ছে। 
পর্ষদ সূত্রে খবর,ইতিমধ্যেই মাধ্য়মিকের ফল তৈরি করে ফেলেছে মধ্যশিক্ষা পর্ষদ। ভার্চুয়ালি মাধ্যমিকের ফল প্রকাশ হবে  কিনা তা নিয়েই চিন্তায় রয়েছে তারা। ভার্চুয়ালি সাংবাদিক সম্মেলন করে ফল প্রকাশ করে সাইট মারফত বিষয়ভিত্তিক ফল জানা যেতে পারে।

সেক্ষেত্রে মার্কশিট ও সার্টিফিকেট ফল প্রকাশের দিনের মতো পাবে না  ছাত্রছাত্রীরা।  মাধ্যমিকের মার্কশিট ও সার্টিফিকেট দেওয়ার ক্ষেত্রে ছাত্রছাত্রীদের স্কুলে না ডেকে অভিভাবকদেরই হাতেই তা দেওয়ার চিন্তা করা হচ্ছে। ইতিমধ্যেই শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় নির্দেশেই সোমবার মধ্যশিক্ষা পর্ষদ কয়েকটি শিক্ষক সংগঠন ও প্রধান শিক্ষকদের মতামত নিয়েছে।