আজ বুধবার দিল্লির বিজেপি-র সদর দফতরে গিয়ে গেরুয়া বাহিনিতে যোগ দিলেন প্রাক্তন মেয়র শোভন চট্টোপাধ্যায়। তিনি একাই নন। তাঁর সঙ্গে বান্ধবী বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়ও বিজেপিতে যোগ দিলেন। এই সময়ে দিল্লিতে বিজেপির সদর দফতরে উপস্থিত ছিলেন বিজেপি রাজ্য সভাপতি  দিলীপ ঘোষ ও বিজেপি নেতা মুকুল রায়। বিজেপিতে শোভনের যোগ দেওয়া নিয়ে এবার মুখ খুললেন রত্না চট্টোপাধ্যায়। 

রত্না এদিন বলেন, তৃণমূলে থেকে অনৈতিক কাজগুলি করতে অসুবিধা হচ্ছিল তাই বিজেপিতে যোগ দিলেন তিনি। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ওনাকে দুটো কাজ করতে বলেছিলেন। কোনও টাই উনি পারেননি। প্রথমত বলেছিলেন ভাল করে দলের জন্য কাজ করতে এবং ওই মহিলাকে ছেড়ে ঘরে ফিরে আসতে। কোনওটাই তিনি পারেননি। তাই বিজেপিতে যোগ দিলেন। 

আরও পড়ুনঃ বিজেপি-তে যোগ দিলেন শোভন, বড় ধাক্কা মমতার

বিজেপিতে শোভনের কী ভূমিকা থাকবে, এই নিয়ে প্রশ্ন করা হলে তাঁর স্ত্রী রত্নাদেবী বলেন, মুকুল রায় যখন তৃণমূলে ছিলেন, তা-ও কিছু সম্মান ছিল। বিজেপিতে তো কোনও সক্রিয়তাই দেখা যায় না। সব কাজ তো দিলীপ ঘোষ ও রাহুল সিনহারাই করেন। শোভনকেও হয়তো ওভাবেই হাত পা কেটে বসিয়ে রাখা হবে। উনি ২০১৭ সালের আগে পর্যন্ত দলের কাজ করতেন। ২০১৭-র ৫ নভেম্বর বাড়ি ছাড়েন। সেদিন থেকেই ওনার পতন শুরু হয়েছিল। তবে আজ থেকে ভাল মতো পতন শুরু হল। পরে আরও হবে। 

বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিজেপি-তে যোগ দেওয়া নিয়ে এদিন রত্না চট্টোপাধ্যায় বলেন, লোকে বলছেন তৃণমূল নেত্রী বিজেপিতে যোগ দিলেন। ওর পরিচয় উনি অধ্যাপিকা। আরও একটা পরিচয় রয়েছে, যা আমি বলতে পারব না। তাই আমার কাছে, একজন অধ্যাপিকা বিজেপিতে যোগ দিলেন মাত্র। কোনও তৃণমূল নেত্রী নয়।