মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেছিলেন 'আমি নতুন ছেলে তুলে আনব'। সেই নতুন ছেলে তথা তৃণমূলের যুব বাহিনীকে চাঙ্গা করতে গিয়ে দক্ষিণ ২৪ পরগণার কর্মী সম্মেলনে আগুনে ভাষণ দিলেন ।  রীতিমতো টি-২০ এর ঢঙে ব্যাট চালালেন অভিষেক। এদিন মহামায়াতলার জয়হিন্দ অডিটোরিয়ামে আয়োজিত  তৃণমূল যুব কংগ্রেস কর্মীসভায় ডায়মণ্ডহারবার কেন্দ্রের সাংসদ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন-

  • মমতা বন্দ্যোপাধ্যয় স্লোগান  দিয়েছিল বদলা নয় বদল চাই। আমি মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের এই মতাদর্শে পুরোপুরি বিশ্বাসী নই। যেখানে রবীন্দ্রসঙ্গীত বাজানোর সেখানে রবীন্দ্রসঙ্গীত বাজাব। যেখানে ডিজে প্রয়োজন সেখানে ডিজে বাজাব।
  • দক্ষিণ ২৪ পরগণায় ভোটের শতকরা হিসেব অনুযায়ী ৫৭ শতাংশ ভোট পেয়েছে তৃণমূল। এটাকে নিয়ে যেতে হবে ৬০ শতাংশে।
  • জেলায় জনসংযোগ বাড়াতে হবে। ‌
  • যারা জয়শ্রীরাম বলবে তাদের রাম না সত্য হ্যায় ফেরত দিন।

প্রসঙ্গত এদিনের কর্মীসভায় অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে হাজির ছিলেন দক্ষিণ চব্বিশ পরগণার তৃণমূল নেতারা। অনুষ্ঠানস্থল থেকে যুব তৃণমূল কংগ্রেস সভাপতি শওকত মোল্লা বলেন যারা বিজেপিতে যাওয়ার চলে যান। আর যারা নেতৃত্ব দিচ্ছেন অথচ হতাশ হয়ে পড়েছেন তাঁরা পদ ছেড়ে দিন। প্রসঙ্গত ভোট বিপর্য়যের পরেই মমতা বন্দ্য়োপাধ্য়ায় দলীয বৈঠকে শুভেন্দু অধিকারী, ফিরহাদ হাকিম, অভিষেক বন্দ্য়োপাধ্য়ায়দের ওপর অনেক দায়িত্ব বাড়িয়েছেন মমতা বন্দ্য়োপাধ্য়য়। তার মধ্যে অন্যতম হল জনসংযোগ। ২১ জুলাই-এর মঞ্চে রেকর্ড ভীড় চাইছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তাতে শক্তি প্রদর্শনও হবে, এবং দলের নীচুতলাকে উদ্বুদ্ধ করাও হবে। কর্মীসভা থেকে অভিষেক সেই কাজই এগিয়ে রাখলেন বলে মনে করছে রাজনৈতিক মহল।