গত দু'দিন ধরে তাপমাত্রার পারদ নামছিল শহর কলকাতার। সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল স্বাভাবিকের নিচে। কিন্তু বৃহস্পতিবার সকালে তা খানিকটা উর্দ্ধমুখী। প্রায় তিন ডিগ্রি বেড়ে এদিন শহরের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা পৌঁছে গেল ১৬.১ ডিগ্রি সেলসিয়াসে। যা স্বাভাবিকের থেকে ২ ডিগ্রি বেশি। যার ফলে এদিন সকালে আবার কিছুটা গরম লাগতে শুরু করেছে।

বুধবার সকাল থেকেই কুয়াশাচ্ছন্ন ছিল আকাশ। কলকাতা ও সংলগ্ন এলাকাতে কয়েক ফোঁটা বৃষ্টির পড়তে দেখা যায়। তবে এই পরিস্থিতি সাময়িক বলে ভরসা দিচ্ছে আলিপুর আবহাওয়া দফতর। ২৪ ঘণ্টা পর থেকেই ফের তাপমাত্রার পারদ নামবে বলে পূর্বাভাস হাওয়া অফিসের। ফের দাপট নিয়ে শহরে ফিরবে শীত। 

বৃহস্পতিবার দক্ষিণবঙ্গের জেলাগুলিত সকালে হালকা কুয়াশা দেখা গেছে। যার কারণে বেড়েছে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা। তবে বেলা বাড়লে আকাশ পরিষ্কারের কথাও জানিয়েছে হাওয়া অফিস। পশ্চিমি ঝঞ্ঝা সরে গেলে শুক্রবার রাত থেকে উত্তুরে হাওয়া ফের রাজ্যে ঢুকতে শুরু করবে। যার জেরে শনি ও রবিবার  সর্বনিম্ন তাপমাত্রা স্বাভাবিকের চেয়ে ২ থেকে ৪ ডিগ্রি কমার সম্ভাবনা রয়েছে। ফলে সপ্তাহান্তে জমিয়ে শীত পড়বে রাজ্যে। 

এদিকে বুধবার রাতে কলকাতার সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল ২৫.২ ডিগ্রি সেলসিয়াস। যা স্বাভাবূিকের থেকে ১ ডিগ্রি নিচে। বাতাসে এদিন জলীয়বাষ্পের পরিমাণ ৪৯ থেকে ৯৬ শতাংশ। 

হাওয়া অফিস জানাচ্ছে বৃহস্পতি ও শুক্রবার বৃষ্টি চলবে দার্জিলিং ও কালিম্পং-এ। ঘন কুয়াশা থাকবে উত্তরবঙ্গের জেলাগুলিতে। সিকিমে বৃষ্টি ও তুষারপাতের পূর্বাভাস দিচ্ছে আবাহওয়া দফতর। 

এদিকে দিল্লি সহ উত্তর-পশ্চিম ভারতের রাজ্যগুলিতে এদিন শৈত্যপ্রবাহ চলবে। ঘন কুয়াশায় ঢেকেছে রাজস্থান থেকে বিহার ও উত্তর-পূর্বের রাজ্যগুলি। শুক্রবার জম্মু-কাশ্মীরে একটি পশ্চিমি ঝঞ্ঝ ঢোকার সম্ভাবনা রয়েছে।  আগামী সপ্তাহের শুরুতে আরোও একটি পশ্চিমী ঝঞ্ঝা আসতে চলেছে।