Asianet News BanglaAsianet News Bangla

পুজোর আগে চিন্তা বাড়াচ্ছে বৃষ্টি, বৃহস্পতিবার থেকে মিলতে পারে স্বস্তি

  • মঙ্গল এবং বুধবার রাজ্য় জুড়ে বৃষ্টির সম্ভাবনা
  • ভারী বৃষ্টির সতর্কতাও রয়েছে
  • উত্তর থেকে দক্ষিণ, বৃষ্টির সম্ভাবনা সর্বত্রই
Weather office predicts rainfall in state till Wednesday
Author
Kolkata, First Published Sep 24, 2019, 10:44 AM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

পুজোর আর দিন দশেক বাকি। শারদোৎসবে বৃষ্টির জন্য ভোগান্তি হবে কি না এখনও জানা না গেলেও আগামী বৃহস্পতিবার থেকে দক্ষিণবঙ্গে আপাতত ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস নেই বলেই জানাচ্ছে আলিপুর আবহাওয়া দফতর। তবে মঙ্গল এবং বুধবার গোটা রাজ্যেই বৃষ্টিপাতের পূর্বাভাস দিয়েছে আলিপুর আবহাওয়া দফতর। তার মধ্যে উত্তর এবং দক্ষিণবঙ্গের বেশ কয়েক জায়গায় ভারী বৃষ্টির সতর্কতাও রয়েছে। 

আলিপুর আবহাওয়া দফতরের পক্ষ থেকে সোমবার জানানো হয়েছে, দক্ষিণ অন্ধ্রপ্রদেশ ও উত্তর তামিলনাড়ুর উপকূল পর্যন্ত পশ্চিম মধ্য বঙ্গোপসাগর এবং দক্ষিণ পশ্চিম বঙ্গোপসাগরের উপরে একটি ঘূর্ণাবর্ত অবস্থান করছে। এর প্রভাবে দক্ষিণবঙ্গের উপরে মৌসুমী অক্ষরেখা শক্তিশালী হবে। এর ফলে আগামী আটচল্লিশ ঘণ্টায় গোটা রাজ্য জুড়েই বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। তবে দক্ষিণবঙ্গের ক্ষেত্রে মঙ্গলবার থেকে আটচল্লিশ ঘণ্টা বৃষ্টির সতর্কতা থাকলেও উত্তরবঙ্গের ক্ষেত্রে শুধুমাত্র মঙ্গলবারই পর্যন্তই বৃষ্টির সতর্কতা জারি করেছে হাওয়া অফিস। 

আলিপুর আবহাওয়া দফতরের পূর্বাঞ্চলীয় অধিকর্তা সঞ্জীব বন্দ্যোপাধ্যায় জানিয়েছেন, মঙ্গববার দক্ষিণবঙ্গের উপকূলবর্তী জেলাগুলির কয়েক জায়গায় ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস রয়েছে। যে জেলাগুলিতে বেশি বৃষ্টি হতে পারে সেগুলি হল গুই মেদিনীপুর এবং দুই চব্বিশ পরগণা। বুধবার পুরুলিয়া, বাঁকুড়ি, ঝাড়গ্রাম এবং পশ্চিম মেদিনীপুরে কয়েক জায়গায় ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনার কথা জানিয়েছেন সঞ্জীববাবু। 

উত্তরবঙ্গের ক্ষেত্রে অবশ্য শুধুমাত্র মঙ্গলবারই দার্জিলিং, জলপাইগুড়ি, কোচবিহার, কালিম্পং এবং আলিপুরদুয়ারে ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস রয়েছে। এছাড়া রাজ্যের সর্বত্রই বুধবার পর্যন্ত বৃষ্টি চলবে। তবে বৃহস্পতিবার থেকে রাজ্যে ভারী বৃষ্টির সতর্কতা নেই বলেই জানিয়েছেন সঞ্জীববাবু। পুজোর আগে  যা অবশ্যই স্বস্তির খবর। 

তবে বৃষ্টি হলেও এখনই আর্দ্রতাজনিত অস্বস্তি কমার সম্ভাবনা কম। কারণ বাতাসে জলীয় বাষ্পের পরিমাণ যথেষ্ট বেশি রয়েছে। সকালের দিকেই তাই প্যাচপ্যাচে গরমে অস্বস্তি থাকবেই। বিকেলের পর থেকে সেই অস্বস্তি অনেকটাই কমবে। 

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios