শুক্রবার সকালে কুয়াশা, বেলা বাড়লে আকাশ পরিষ্কার হবে। তবে এদিন হাওয়া অফিসের পূর্বাভাসকে মিলিয়ে দিয়ে একলাফে পারদ চড়ল ।আবহাওয়া দফতর সূত্রে খবর,  উত্তরবঙ্গের শীত থাকলেও কলকাতা সহ দক্ষিণবঙ্গের থেকে শীত আপাতত বিদায় নিতে চলেছে। তবে দক্ষিণবঙ্গের সকালের দিকে হালকা থেকে মাঝারি কুয়াশা থাকবে। 

আরও দেখুন, Election Live Update- আজ ১২ ঘন্টা বাংলা বনধ, সরকারি কর্মীদের উপস্থিতি বাধ্যতামূলক, সাফ জানাল নবান্ন 

 

 


জাঁকিয়ে শীত না পড়লেও হালকা শীতেই আস্থা রেখেছিল রাজ্যবাসী। আগের মতো শীতকালে শীতের পরশ না মিললেও নতুন বছরের শুরুতে হিমেল পরশ বেশ ভালই লাগছিল। তবে আপাতত তাতে ইতি টেনেছে আবহাওয়া, জানাল হাওয়া অফিস। আবহাওয়া দফতরের অধিকর্তা সঞ্জীব গঙ্গোপাধ্য়ায় জনিয়েছেন, উত্তরবঙ্গের শীত থাকলেও কলকাতা সহ দক্ষিণবঙ্গের থেকে শীত আপাতত বিদায় নিতে চলেছে।নতুন করে আর তাপমাত্রা পতন হবে না। ধীরে ধীরে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা বাড়তে থাকবে। উত্তরবঙ্গের আরও কয়েকদিন ঠান্ডা থাকবে। দক্ষিণবঙ্গের সকালের দিকে হালকা থেকে মাঝারি কুয়াশা থাকবে। বৃষ্টির সম্ভাবনা নেই। উত্তরবঙ্গের দার্জিলিং ,কালিম্পং, জলপাইগুড়িতে হালকা বৃষ্টি হতে পারে। 

আরও পড়ুন, 'টলিউডে মাফিয়ারাজ চলছে', শাসকদলের বিরুদ্ধে বিস্ফোরক রুদ্রনীল 

 

 


অক্ষরে অক্ষরে মিলে গিয়েছে হাওয়া অফিসের পূর্বাভাস। শুক্রবার আদ্রতা-তাপমাত্রা দুই একলাফে বেড়ে অস্বস্তি শহরে। আবহাওয়া দফতররে খবর অনুযায়ী, শুক্রবার শহরের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ২৯.২ডিগ্রি সেলসিয়ার্স। সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১৮.২ ডিগ্রী সেলসিয়ার্স।  স্বাভাবিকের থেকে ১  ডিগ্রি উপরে ।বাতাসে জলীয়বাষ্পের সর্বোচ্চ পরিমাণ   ৯৯ শতাংশ এবং সর্বনিম্ন ৩৪ শতাংশ। বৃহস্পতিবার শহরের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ২৮.৪ডিগ্রি সেলসিয়ার্স। সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১৫.৫ ডিগ্রী সেলসিয়ার্স।  স্বাভাবিকের থেকে ২  ডিগ্রি নিচে।বাতাসে জলীয়বাষ্পের সর্বোচ্চ পরিমাণ   ৯৯ শতাংশ এবং সর্বনিম্ন ৩৭ শতাংশ।