আমেরিকার কার্টুন প্রোগ্রাম 'দ্য সিম্পসনস' আজকাল সোশ্যাল মিডিয়ায় করোনা ভাইরাসের আতঙ্গের মধ্যে এক বিশেষ আলোচনার বিষয় বস্তু হয়ে দাঁড়িয়েছে। এই কার্টুনের একটি ধারাবাহিকে ২৭ বছর আগে চায়নায় ছড়িয়ে পড়া করোনার লক্ষণের বিষয়গুলি সম্প্রচার করা হয়েছিল। যদিও এই ধারাবাহিকটিতে ভাইরাসের নাম ওসাকা বলে ব্যবহার করা হয়েছিল, যা বর্তমানে করোনা ভাইরাস নামে আতঙ্ক সৃষ্টি করেছে বিশ্ব জুড়ে।

আরও পড়ুন- করোনা আতঙ্ক, আইসোলেশন থেকে উধাও ২ যুবক

এই কার্টুনটির এক ধারাবাহিকে দেখানো হয়েছিল করোনা ভাইরাসের একই রকম লক্ষণগুলি। আসলে, ১৯৯৩ সালে প্রচারিত দ্য সিম্পসনসের একটি এপিসোডে দেখা গেছে যে আমেরিকার কল্পিত শহর স্প্রিংফিল্ডে একজন ব্যক্তি জাপান থেকে এসেছেন। তিনি শহরে আসার সঙ্গে সঙ্গেই ছোঁয়াচে এই রোগে পুরও শহরজুড়ে একটি বিপজ্জনক ভাইরাস ছড়িয়ে পড়ে। এই পর্বটির নাম ছিল মার্গ ইন চেইনস।

এই পর্বগুলি এবং বর্তমানে করোনার ভাইরাসের কারণে সৃষ্ট পরিস্থিতিটির মধ্যে সাদৃশ্য রয়েছে। ফলে এই পোস্টগুলি সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করতেই তা ভাইরাল রয়ে যায়। কেউ কেউ একে ভবিষ্যদ্বাণী আবার কেউ কেউ একে একটি কাকতালীয় ঘটনা হিসেবে বিবেচনা করছে। কারণ ধারাবাহিক অনুযায়ী প্রদর্শিত ভাইরাসটি জাপান থেকে এসেছে। আর এদিকে চীনের হুবেই প্রদেশের রাজধানী উহান থেকে করোনার ভাইরাস ছড়িয়েছে। তবে এই ধারাবাহিকের ভক্তরা একে করে ভবিষ্যদ্বাণী হিসেবেই সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্মে মন্তব্য করছেন।

 

সিম্পসনে ২০০০ সালেও একটি পর্ব প্রচার করেছিল যাতে দেখানো হয়েছিল আমেরিকার প্রেসিডেন্ট হয়েছেন ডোনাল্ড ট্রাম্প। যা ট্রাম্প মার্কিন রাষ্ট্রপতি হওয়ার ১৭ বছর আগেই সম্প্রচার করা হয়েছিল। তাই বর্তমানে করোনা ভাইরাসের এই আতঙ্কের ভবিষ্যৎবানী করার ফলে এই অনুষ্ঠানের নির্মাতা ও লেখকরা ভবিষ্যত দেখতা পারে বলে সোশ্যাল মিডিয়ায় মন্তব্য করেছেন অনেকেই।