অনেকের মতে, মৃত প্রিয়জনরা নাকি অনেকসময় সংযোগ করার চেষ্টা করেন। কাছের কাউকে হারানো সত্য়িই খুব কঠিন কাজ। বিচ্ছেদ চিরকালিন বেদনাময় । তারা শারীরিকভাবে চলে গেলেও অনেকের মতে,তারা সময়ে সময়ে প্রিয়জনের কাছে থাকতে পারে। 

আরও পড়ুন, হিমালয় সন্ন্যাসীদের এমন কিছু অতিমানবীয় ক্ষমতা রয়েছে, যা হার্ভার্ড বিজ্ঞানীদেরও অবাক করে

লোক মতে, তারা দেখার জন্য ফিরে আসার অনেক কারণ রয়েছে। এমন অনেক সময়ই হয় যে ব্যক্তিগতভাবে চেনেন এমন কোনও মৃত প্রিয়জনের উপস্থিতি অনুভব করেন অনেকে। অনেকের মতে,  মৃত ব্যক্তিদের সাথে যোগাযোগের জন্য বেশ কয়েকটি প্রত্যক্ষ পদ্ধতি রয়েছে। তবে তারা নাকি  তাদের প্রিয়জনের উপস্থিতি বুঝতে পারেন, কতগুলি চিহ্ন বা  লক্ষণের মাধ্য়মে।  

আরও পড়ুন, নিধিবনে কৃষ্ণের রাসলীলা দেখে ফেললেই নাকি সর্বনাশ, এতোটাই রহস্যময় বৃন্দাবনের এই স্থান

অবশ্য় তাদের মতে, বিভিন্ন উপায় রয়েছে যার দ্বারা  তাদের প্রিয়জনের কাছে উপস্থিতি প্রকাশ পাবে। যেকোনও সুগন্ধি প্রায়শই মানুষের মধ্যে শক্তিশালী সংযোগ হতে পারে। এটি মৃত প্রিয়জনের দেহের গন্ধ। যে আতর তারা ব্যবহার করত বা গন্ধের মাধ্যমে যা তারা সহজেই তাদের উপস্থিতি বোঝা যায়।