দিনে দিনে বৃদ্ধি পাচ্ছে তাপমাত্রা। গ্রীষ্মের এই প্রখর তাপ থেকে রক্ষা পেতে তাই অনেকেই এয়ারকন্ডিশনের শ্মরণাপন্ন হন। তবে এই উপায়ে আপনি পুরো বাড়ি ঠাণ্ডা রাখা তো সম্ভব নয়। তাই প্রচণ্ড এই তাপমাত্রা থেকে রক্ষা পেতে কাজে লাগান এই ইন্ডোর প্ল্যান্টগুলি। দামী সামগ্রী দিয়ে ঘর না সাজিয়ে, ঘরের কোনায় সাজিয়ে রাখুন কয়েকটি  ইন্ডোর প্লান্ট। ঘরের পরিবেশ ও মন দুই ভাল রাখতে কম খরচে সাজিয়ে ফেলুন ঘর। 

আরও পড়ুন- দ্রুত গতিতে গলছে হিমবাহ, জলস্তর বৃদ্ধির ফলে বিপদসীমায় এশিয়ার বেশিরভাগ অঞ্চল জানাচ্ছে সমীক্ষা 

বাজারে বেশিরভাগ ইন্ডোর প্লান্টের দাম খুব বেশি। এই গাছগুলি ঘরের শোভা বাড়িয়ে দেয়। তাছাড় গবেষকদের মতে, ঘরের মধ্যে গাছ থাকলে তা মানসিক চাপ কমাতে সাহায্য করে। তাই পকেটের কথা ভেবে কম দামের অথচ সুন্দর গাছ দিয়ে সাজিয়ে ফেলুন ঘর। শুধু প্রতিদিন কিছু সময় দিয়ে পরিষ্কার করলেই গাছগুলি সুন্দর রাখা যায়। জেনে নেওয়া যাক কোন গাছগুলি কাজে লাগাতে পারবেন।

আরও পড়ুন- অপেক্ষার অবসান, ২৩ মার্চ লঞ্চ হতে চলেছে Oneplus 9 series-সহ প্রথম স্মার্টওয়াচ 

১) মানি প্ল্যান্ট- অনেকেই ঘর সাজাতে এই গাছ ব্যবহার করে। এই গাছ অতি পরিচিত। তবে ঘর সাজানোর পাশপাশি ঘরের অতিরিক্ত তাপমাত্রা নিয়ন্ত্রণে রাখতে সাহায্য করে এই গাছ। বসার ঘরে বা ডেস্কে এই গাছ ছোট করে রাখতে পারলে ঘরের সৌন্দর্যও বাড়িয়ে তুলবে।

২)  অ্যালোভেরা গাছ- খুব সহজলভ্য এই গাছ কম দামেই যে কোনও নার্সারি থেকে কিনতে পাওয়া যায়। ঘরের তাপমাত্রা নিয়ন্ত্রণে রাখার পাশাপাশি অ্যালোভেরায় রয়েছে প্রচুর গুণ। যে কোনও ধরণের ত্বকের জন্য খুবই উপকারী এই গাছ। এই গাছ ঘরে অক্সিজেনের মাত্রাও বাড়িয়ে দেয়, ফলে ঘর ঠাণ্ডা থাকে। 

৩) রবার গাছ-  সুন্দর এই ইনডোর প্ল্যান্ট ডাইনিং বা ড্রইং রুমের যে কোনও কোনার রাখলে দেখতে খুব সুন্দর লাগে। অন্যান্য ইন্ডোর প্লান্টগুলির তুলনায় এই গাছ আকারে একটু বড় হয়। প্রচণ্ড গরমের হাত থেকে রক্ষা পেতে বাড়িতে আনতে পারেন এই গাছ। সবচেয়ে বড় সুবিধা হল, আকারে বড় হলেও এই গাছের যত্ন নেওয়াও খুব সহজ। 

৪) মাদার ইন ল টাঙ- বর্তমানে ঘরের সৌন্দর্য বৃদ্ধির জন্য অনেকেই এই গাছ ব্যবহার করে। লম্বা লম্বা পাতার এই গাছ ঘরের যে কোনও জায়গায় সাজিয়ে রাখলেই ঘরের শোভা বৃদ্ধি করে। ঘর ঠাণ্ডা রাখতে দারুন কাজ দেয় এই গাছ। এই গাছটির নাম খুব মজাদার মাদার ইন ল টাঙ।  

৫) এরিকা পাম- এই গাছের দামও খুব কম। এই গাছের পাতা দেখতে একদম সুপুরি গাছের মত। অ্যালোভেরার মত এই গাছও প্রচুর পরিমানে অক্সিজেন সরবরাহ করে। ফলে অনায়াসেই ঘরের তাপমাত্রা কমাতে সাহায্য করে। এই গাছেরও যত্ন করা খুব সহজ।