এক নাগারে উঠছে হেঁচকি! এখন উপায়, শরীরে নাকি জলের অভাব ঘটলে হেঁচকি ওঠে এমনটাও বলে থাকেন অনেকেই। কিন্তু মুহুর্তেই যে জল খেলে স্বস্তি মেলে এমনটা নয়। ফলে উষ্ঠাগত প্রাণ। কীভাবে হেঁচকি থেকে মিলবে স্বস্তি বুঝে না পেয়ে অস্বস্তিতে পরেন অনেকেই। এমন সময় হেঁচকি থামান চুটকিতে। মাথায় রাখুন কয়েকটি টিপস।

আরও পড়ুনঃ পিরিয়ডসের ব্যথা নিয়ে প্রত্যেক মাসেই দুশ্চিন্তা, মুক্তি পেতে মেনে চলুন এই নিয়মগুলি

হেঁটকি কমানোর সহজ উপায় গুলো কী কী জানুনঃ
১) নাক ও কান বন্ধ করে রাখুন। দেখবেন মুহুর্তে বন্ধ হয়েগিয়েছে হেঁচকি। তবে এটার জন্য খানিকটা ধৈর্য্য ধরতে হবে। 
২) চিনি হয়তো অনেকেই খাননা নানা কারণে। কিন্তু যদি হেঁচকি কমাতে হয় তবে একচামচ চিনি খেয়ে নিলে ততক্ষণাৎ  মিলবে স্বস্তি।
৩) জল পান করা যেতে পারে। কিংবা জল দিয়ে গার্গল করে নিতে পারেন। যদিও এতে বিষম লাগার সম্ভাবনা থেকে যায়। 
৪) আসে পাশে কেউ যদি আচমকা আপনাকে কিছু বলে বলে, বা করে তবে হেঁচকি কমে যায়। আচমকা কিছু হলে হেঁচকি কমে যায়।
৫) হাতের কাছে যদি বাটার থেকে থাকে তবে তা খেয়ে নিতে পারেন। বাটার খেলে হেঁচকি কমে যায় তারা তারি।
৬) সব থেকে যা উপকার করে তা হল মনকে অন্যদিকে  ঘুরিয়ে দেওয়া। একটুর জন্য হলেও যদি মনকে ঘুরিয়ে দেওয়া যায় তবে হেঁচকি বন্ধ হয়ে যায়।