সঞ্জীব কুমার দুবে, পূর্ব মেদিনীপুর-স্কুলে দুর্নীতির অভিযোগ উঠল খোদ প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে। শুধু তাই নয়, স্কুলে কর্মী নিয়োগ, মিড ডে মিল সহ একাধিক বিষয়ে দুর্নীতির অভিযোগ তোলা হয়েছে প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে। তিনি প্রধান শিক্ষকের পাশাপাশি এলাকার একজন তৃণমূল নেতা হওয়ায় এলাকায় শুরু হয়েছে রাজনৈতিক চাপানউতোর।

আরও পড়ুন-কেমন আছেন করোনা আক্রান্তরা, বাড়ি বাড়ি গিয়ে তাঁদের খোঁজ নিলেন জেলাশাসক

ঘটনাটি ঘটেছে পূর্ব মেদিনীপুরের কাঁথির মারিশদায়। বিজয়কৃষ্ণ জাগৃহি বাণীপীঠের প্রধান শিক্ষক মানিক দোলুইয়ের বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগে সরব হয়েছে এলাকার বিরোধী রাজনৈতিক দলগুলি। এদিন সকালে স্কুলেরই গেটের বাইরে প্রধান শিক্ষক মানিক দোলুইয়ের বিরুদ্ধে পোস্টার পড়ে। সেখানে লেখা রয়েছে স্কুলে কর্মী নিয়োগ, মিড ডে মিল সহ একাধিক দুর্নীতিতে জড়িত রয়েছেন ওই প্রধান শিক্ষক। ওই স্কুলের পরিচালন কমিটির সম্পাদক তিনি।

আরও পড়ুন-নলকূপের গর্তে টগবগ করে ফুটছে জল, পাঠকাঠি দিলেই জ্বলছে আগুন, বনগাঁয় রহস্য

অভিযোগ, রাতারাতি একতরফা বেআইনিভাবে  বিজয়কৃষ্ণ জাগৃহি বাণীপীঠের তৃণমূল পরিচালিত পরিচালন কমিটি গঠন করা হয়েছিল। আর সেখানে সম্পাদক হয়েছিলেন প্রধান শিক্ষক মানিক দোলুই। সম্প্রতি, ওই স্কুলে চতুর্থ শ্রেণির কর্মী নিয়োগেও দুর্নীতি করা হয়েছে বলে অভিযোগ। নিজের ছেলেকে চাকরি দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে। পাশাপাশি, মিড ডে মিলেও ব্য়াপক দুর্নীতি হয়েছে বলেও অভিযোগ করলেন স্থানীয় সিপিএম নেতা ঝাড়েশ্বর বেরা। 

আরও পড়ুন-দুই দুষ্কৃতী দলের মধ্য়ে সংঘর্ষে আগুন-বোমাবাজি, উত্তপ্ত হয়ে উঠল নদিয়ার শান্তিপুর

যদিও তাঁর বিরুদ্ধে যাবতীয় অভিযোগ অস্বীকার করেছেন স্কুলের প্রধান শিক্ষক। মিড ডে মিল নিয়ে দুর্নীতির অভিযোগ পুরোপুরি ভিত্তিহীন। রাতের অন্ধকারে কেউ বা কারা তাঁর বিরুদ্ধে ইচ্ছাকৃতভাবে পোস্টার লাগিয়েছে।