সঞ্জীব কুমার দুবে, পূর্ব মেদিনীপুর-বেশ কয়েক মাস ধরে রাজ্য রাজনীতিতে চলতে থাকা যাবতীয় জল্পনাই জল ঢাললেন পরিবহণমন্ত্রী শুভেন্দু অধিকারী। দলত্যাগের জল্পনা পুরোপুরি উড়িয়ে দিলেন তিনি। যাবতীয় জল্পনাই জল ঢেলে তিনি স্পষ্ট জানালেন, মুখ্যমন্ত্রী তাঁকে তাড়াননি, তিনিও ছেড়ে দেননি। তিনি এখনও মন্ত্রিসভার সদস্য। পূর্ব মেদিনীপুরের এক সভায় নিজের ধারনা স্পষ্ট করলেন শুভেন্দু।

আরও পড়ুন-মালদহে বিস্ফোরণে ক্ষতিপূরণ ঘোষণা মমতার, মৃতদের পরিবারকে ২ লক্ষ আর্থিক সাহায্য রাজ্যের

বেশ কয়েক মাস তৃণমূলে সাংগঠনিক কাজকর্ম থেকে নিজেকে দূরে রেখেছিলেন শুভেন্দু অধিকারী। রাজ্যের বিভিন্ন জায়গায় তাঁকে একাকী সভা করতে দেখা করতে দেখা গিয়েছিল। এমনকি, দক্ষিণবঙ্গের বিভিন্ন জেলায় সামাজিক অনুষ্ঠানে যোগ দিয়েছিলেন দলীয় ব্য়ানার ছাড়াই। আবার, 'আমরা দাদার অনুগামী's বলেও তাঁর সমর্থনে পোস্টার পড়েছিল রাজ্য়ের বিভিন্ন জায়গায়। পূর্ব মেদিনীপুরের তমলুক সহ নদিয়াতে সমাজকর্মীর ব্যানারে শুভেন্দু সমর্থনে পোস্টার পড়েছিল। শুধু তাই নয়, সম্প্রতি বিজেপিতেও তাঁর গুরুত্ব বাড়ছিল। ভারতী ঘোষ থেকে সায়ন্তন বসু তাঁকে তৃণমূল ছেড়ে বিজেপিতে যোগদান করার আহ্বান জানিয়েছিলেন। শুভেন্দু অধিকারী তৃণমূল ছেড়ে বিজেপিতে যোগদান করছেন বলে জোর জল্পনা শুরু হয়েছিল রাজ্য রাজনীতিতে। কিন্তু সব জল্পনাই জল ঢাললেন শুভেন্দু অধিকারী নিজেই।

আরও পড়ুন-'শুভেন্দু অধিকারী ছিলেন, আছেন, থাকবেন', এবার পোস্টার পড়ল উত্তরবঙ্গেও

বৃহস্পতিবার পূর্ব মেদিনীপুরের এক সভায় নিজের দারনা স্পষ্ট করেন শুভেন্দু। তিনি বলেন, ''আমি এখনও একটা দলের প্রাইমারি মেম্বার, সক্রিয় সদস্য। আমি এখনও মন্ত্রিসভা সদস্য। মুখ্যমন্ত্রী আমাকে রেখেছেন। উনিও তাড়াননি, আমিও ছাড়িনি। মেদিনীপুরের মানুষ বিদ্যাসাগরের দেশের মানুষ। আমরা এত আনইথিক্যাল কাজ করি না। যতক্ষণ একটা দলে আছি, সেই নিয়ন্ত্রকরা আমাকে তাড়াইনি, আমিও ছাড়িনি, ততক্ষণ এসব কথা বলা যায় না''। নিজের ধারনা স্পষ্ট করে জানালেন শুভেন্দু অধিকারী। 

আরও পড়ুন-বিজেপির নজর নীলবাড়িতে, একুশের নির্বাচনের রণ কৌশল ঠিক করতে বাংলাকে পাঁচ জোনে ভাগ

পাশাপাশি, বেশ কয়েকদিন ধরে বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যমে শুভেন্দুকে নিয়ে নানান খবর প্রকাশিত হয়। তা নিয়েও সংবাদ মাধ্য়মের প্রতি তীব্র ক্ষোভ প্রকাশ করেন শুভেন্দু। তিনি বলেন, ''মিডিয়া টিআরপির জন্য যা খুশি করতে পারেন। মিডিয়ার লোকেরা আমাকে ভাবছে আমি দল পরিবর্তন করব। আমি এক-দুদিনের মানুষ নয়। আমি বসন্তের কোকিল নয়। আর শুধু ভোট চাই, ভোট দাও, ভেঙে দাও, গুঁড়িয়ে দাও একথা তো বলি না''। মন্তব্য শুভেন্দুর।