পাকিস্তানের ইমরান খান সরকারের বিরুদ্ধে গুরুতর অভিযোগ আনলেন পাকিস্তান মুসলিম লিগ-নওয়াজ বা পিএমএল-এন-এর সহসভাপতি তথা প্রাক্তন পাক প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরিফের মেয়ে মরিয়ম নওয়াজ। বৃহস্পতিবার এক পাক সংবাদমাধ্যমে তিনি অভিযোগ করেছেন, লাহোর জেলে বন্দি থাকার সময়ে ইমরান সরকার তাঁকে 'ইঁদুর-দূষিত খাবার' খেতে বাধ্য করেছিল। তবে এই অভিযোগ উড়িয়ে ইমরান সরকার বলেছে, হয় ওই ইঁদুরগুলি ছিল তাঁর বাড়ির, অথবা তিনি মিথ্যা কথা বলছেন।

পাকিস্তানের জিও নিউজ জানিয়েছে, তাদের সঙ্গে এক অনানুষ্ঠানিক আলাপচারিতায় মরিয়ম জানিয়েছেন, লাহোর কারাগারে তাঁকে যে খাওয়ার দেওয়া হতো তা ইঁদুরে মুখ দেওয়া। সেইসঙ্গে, যে ওযুধগুলি দেওয়া হতো তাঁকে, সেগুলি সবই ছাতা পড়া, একেবারেই ব্যবহারযোগ্য নয়। কিন্তু, প্রতিবাদ করার পরও তাঁকে সেই ইঁদুরে খাওয়া খাবার, আর ছাতা পড়া ওষুধই খেতে বাধ্য করা হয়েছিল। এর আগে এই মাসের গোড়াতে মরিয়ম অভিযোগ করেছিলেন যে কারাগারে তাঁর কক্ষে, এমনকী শৌচাগারেও ক্যামেরা লাগিয়ে রেখেছিলেন ইমরান খান। প্রসঙ্গত, এক অর্থ পাচার মামলায় গ্রেফতার করা হয়েছিল মরিয়ম নওয়াজকে।

স্বাভা৩বিকভাবেই মরিয়মের সব অভিযোগ অস্বীকার করেছে ইমরান সরকার। পাক প্রধানমন্ত্রীর অন্যতম উপদেষ্টা ব্যারিস্টার মির্জা শাহজাদ আকবর দাবি করেছেন, পিএমএলএন নেত্রীর জন্য খাবার আসত তাঁর বাড়ি থেকে। তাই যে ইঁদুরের কথা তিনি বলছেন, সেগুলি হয় তার পারিবারিক ইঁদুর। আর নয়তো তিনি পারিবারিক ধারা মেনে মিথ্যা বলছেন। কটাক্ষ করে বলেছেন ইঁদুরগুলি বেশ 'শরিফ' (নির্দোষ), খাবার হাতে পেয়ে একটু খেয়ে বাকিটা রেখে দিত।