এই বিশ্বে সবকিছুই সম্ভব। তা আরও একবার প্রমান করে দিল সন্ত্রাসবাদীরা। যারা জেহাদের করার জন্য নিজেদের জীবন বিপন্ন করে এগিয়ে যায়, পরিবার ও আত্নীয়দের ভালোবাসাকে দুহাত দিয়ে সরিয়ে দিয়ে পিছপা হয় না। তাদের অতীত নেই, বর্তমানকে ভালোবাসে না, আর ভবিষ্য়ৎ মানেই তাদের কাছে মৃত্যু। তেমনই এক সন্ত্রাসবাদীর জীবন বিমা হদিশ পাওয়া গেছে। 

তালিবান জঙ্গি হিসেবে পরিচিত মোল্লা আক্তার মানসুর ২০১৬ সাল মার্কিন ড্রোন হামলায় নিহত হয়েছিল।  সেই জঙ্গি সম্ভবত পাকিস্তানে কোনও একটি বেসরকারি সংস্থার কাছ থেকে একটি জীবন বিমা করিয়েছিল। জঙ্গিদের তহবিল নিয়ে ঘাঁটাঘাটি করার সময় এই অবাক করা তথ্য সামনে এসেছে। মনসুর ও তার পলাতক সহযোগীদের বিরুদ্ধে সন্ত্রাসবাদী মামলা চলছ করাচির  একটি আদালতে। সেখানেই এই তথ্য পেশ করেছে পাকিস্তানের বেসরকারি সংস্থাটি। ফেডারাল ইনভেস্টিগেশন এজেন্সির দায়ের করা মামলার শুনানির সময় এই তথ্য সামনে আসে। শুনানিতে বলে হয়েছিল মোল্লা আক্তার মনসুর জাল পরিচয় পত্র জমা করে জীবন বিমাটি কিনেছিল। 

আমেরিকায় গান্ধী মূর্তির অবমাননা খালিস্তানিদের, কৃষক আন্দোলনকে সমর্থন জানাতে গিয়ে জাতির জনককে অসম্মান...

বিজেপির ঘরে আবার করোনার থাবা, এবার আক্রান্ত দলের প্রধান জেপি নাড্ডা ...

২০১৬ সালে মৃত্যুর আগে মনসুর তিন লক্ষ টাকার বিনিময় একটি জীবন বিমা করিয়েছিল। তবে এফআইআরএ তদন্তকারীরা প্রমিয়ামের সঙ্গে মূল  টাকা অবিলম্বে ফেরত দেওয়ার কথা বলেছে। পাকিস্তানের সন্ত্রাসবাদী আদালতের বিচারক আফগান নেতাও ও তার সহযোগীদের আর্থিক লেনদেনের একটি পূর্ণ রিপোর্ট দাখিল করতে বলেছিল।