পাকিস্তান মোস্ট ওয়ান্ডেট জঙ্গি তালিকা প্রকাশ করেছে। আর সেই তালিকায় নাম রয়েছে মুম্বইয়ের সন্ত্রাসবাদী হামলার সঙ্গে জড়িত বেশ কয়েকজন জঙ্গির নাম। ফেডারেল ইনভেস্টিগেশন এজেন্সি বা এফআইটিএর সন্ত্রাসবিরোধী শাখার জারি করা এই তালিকায় আলতাফ হুসেন ও পাকিস্তান মুসলিম লিগ নওয়াজ এর কর্মী নমাসির বাটের নাম রয়েছে।  ভারতের একটি সংবাদ সংস্থা জানাচ্ছে পাকিস্তানের প্রকাশ করা জঙ্গি তালিকায় মুম্বই হামলায় জড়িত ১৯ জন জঙ্গির নাম রয়েছে। ওই জঙ্গিদের সন্ধান দিলে পুরষ্কার দেওয়া হবে বলেও ঘোষণা করা হয়েছে। 

পাকিস্তানের প্রকাশ করা তালিকায় নাম রয়েছে মুলতানের  মহম্মদ আমজাদ খানের। এই আমদাজই মুম্বইয় হামলার জঙ্গিদের জলপথে আসার জন্য বোটের ব্যবস্থা করেছিল। লাইফ জ্যাকেট থেকে বোট ইঞ্জিন সবই গোড়ার করেছিল সে। নাম রয়েছে বোটের চালকক গফুরেরও। এছাড়াও আরও যে নাম রয়েছে তারা সকলেই লস্কর ই তইবার সদস্য হিসেবেই পরিচিত। পাক তালিকায় নাম রয়েছে ইফতিকার আলির। সে লস্করের প্রাক্তন সদস্য হিসেবে পরিচিত। মুম্বই হামলার জন্য সে জঙ্গিদের সঙ্গে যোগাযোগ রাখতে ভয়েস ওভার ইন্টারনেট প্রোটোকল সংযোগ পেতে ইসলামাবাদে ২৫০ ডলার সমা দিয়েছিল ২০০৫ সালে। 

তবে পাকিস্তানের প্রকাশ করা তালিকায় মুম্বই হামলার মাস্টার মাইন্ড হাফিজ সইদ, পুলওয়ামা হামলার অন্যতম চক্রী মাসুদ আজাহারের নাম নেই। দাইদ ইব্রাইম নিয়েও তালিকায় কোনও কিছু লেখা নেই। যদিও পাকিস্তান সর্বদাই বলে দাইদ তাদের দেশে নেই। কিন্তু রাষ্ট্রসংঘের জঙ্গি তালিকায় পাকিস্তানের বাসিন্দা হিসেবেই রয়েছে দাউদের নাম। তবে পাকিস্তানের জঙ্গি তালিকায় নাম রয়েছে প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি পারভেজ মুশারফ ও প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী শওকত আজিজের ওপর হামলা, পঞ্জাবের প্রাক্তন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী সুজা খানজাদা হত্যার ঘটনায় জড়িতদের নাম রয়েছে।