চরম আর্থিক সংকটের মুখে পাকিস্তান। অর্থিক সংকটের মুখে পড়ে পাকিস্তানে রুটি এবং নানের দাম বাড়িয়ে দিয়েছিল ইমরান খানের সরকার। তবে এবার রুটি এবং নানের দাম কমিয়ে আবার পূর্ব নির্ধারিত মূল্যে ফিরিয়ে নিয়ে গেল পাক সরকার। বুধবার পাক সরকারের তরফে রুটির দাম পূর্বনির্ধারিত মূল্যেই ফিরিয়ে আনার নির্দেশ দেওয়া হয় প্রাদেশিক প্রশাসনকে। 

মঙ্গলবার এই বিষয় নিয়ে পাকিস্তানের কেন্দ্রীয় মন্ত্রীসভার মন্ত্রীদের নিয়ে একটি বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়, যেখানে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় ৩০ জুনের আগে রুটির দাম যা ছিল সেই দামই কার্যকর হবে। প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ সহকারী ডক্টর ফিরদৌস আশিক আওয়ান জানিয়েছেন, প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান দেশের অর্থনৈতিক সমন্বয় কমিটিকে নির্দেশ দিয়ছেন, নান ও রুটির দাম কমাতে যাবতীয় কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে। প্রসঙ্গত, ইমরান খানের সরকার রান্নার গ্যাস, বিদ্যুত্‍ ও অন্যান্য জ্বালানির দাম বাড়িয়ে দেওয়ার কতারণেই রুটি ও নানের মতো খাবারের দাম বেড়ে গিয়েছিল বলে অভিযোগ। 

এদিনের বৈঠকে গ্যাসের দাম বৃদ্ধির বিষয়টির ওপরেও আলোকপাত করা হয়েছে বলে জানা গিয়েছে। এদিনের বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন স্বয়ং পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। বর্তমানে পাকিস্তানের একাধিক জায়গায় নান বা পরোটার দাম হল  ১২-১৫ টাকা এবং রুটির দাম ১০-১২ টাকা। আর দাম কমিয়ে নানের দাম করা হবে ৮-১০ টাকা এবং রুটির দাম কমিয়ে করা হয়েছে ৭-৮ টাকা।  আরও জানা গিয়েছে যে, রুটির দাম কম করতে গমের দামও কমানো হবে। পাশাপাশি রান্নার গ্যাসের ওপর ১.৫১ বিলিয়ন টাকা ভর্তুকি দেবে বলে জানিয়েছে পাক সরকার।