টোকিও অলিম্পিকের আগে বড়সড় সাফল্য পেলেন ভারতীয় তারকা কুস্তিগীর বজরং পুনিয়া। রোমের র‌্যাঙ্কিং সিরিজের রুদ্ধশ্বাস ফাইনালে শেষ ৩০ সেকেন্ডে বাজিমাত করে সোনা জিতলেন বজরং। অলিম্পিকের আগে যা বজরংয়ের আত্মবিশ্বাস অনেকটাই বাড়িয়ে দেবে বলে বে করছেন বিশেষজ্ঞরা। এবার টোকিও অলিম্পিকসে ভারতের পদক জয়ে অন্যতম ভরসা বজরং পুনিয়া। তার আগেই দেশকে আরও এক সোনা দিয়ে গর্বিত করলেন তিনি। এই সাফল্যের ফলে বিশ্ব ব়্যাঙ্কিংয়ে এক নম্বরে উঠে এলেন বজরং।

রোমের র‌্যাঙ্কিং সিরিজের ফাইনালে বজরং পনিয়ার প্রতিপক্ষ ছিলেন চিরপ্রতীদ্বন্দ্বী ঙ্গোলিয়ার তুলগা তুমুর ওচির। ৬৫ কেজি বিভাগে মুখোমুখি হয়েছিলেন তারা। কিন্তু খেলায় ২-০ পিছিয়ে ছিলেন বজরং। কিন্তু লড়াই শেষ হওয়ার ৩০ সেকেন্ড আগে তিনি সমতা ফেরান। যে-হেতু শেষ স্কোরিং পয়েন্ট ভারতীয় কুস্তিগিরই পান, তাই তাঁকে বিজয়ী ঘোষণা করা হয়। মাথা ঠান্ডা রেখে নিজের ডিফেন্সের উপর ভরসা রেখে জয়ী হন বজরং। রোমের ম্যাট্টিও পেলিকনে এটি বজরং পুনিয়ার পরপর দ্বিতীয়বার স্বর্ণপদক জয়। জয়ের পর বজরং জানিয়েছেন,' আগের চেয়ে আমার লেগ ডিফেন্সে উন্নতি হয়েছে বুঝতে পারছি। তবে আরও উন্নতি করতে হবে। আক্রমণও আরও ধারালো করতে চাই।'

অলিম্পিকে পদক জয় যে তার পাখির চোখ সেই কথা আগেই জানিয়েছেন বজরং পুনিয়া।  অলিম্পিক শুরুর আগে যাতে মনঃসংযোগ নষ্ট না হয়, তাই আগেই সোশ্যাল মিডিয়া থেকে নিজেকে সরিয়ে নিয়েছেন। নিজের যাবতীয় সোশ্যাল মিডিয়া অ্যাকাউন্ট বন্ধ করে দিয়েছেন। একইসঙ্গে আমেরিকা থেকেও বিশেষ প্রশিক্ষণ নিয় এসেছেন বজরং। দিন-রাত এক করে অলিম্পিকের প্রস্তুতি চালাচ্ছেন ভারতীয় কুস্তিগীর। নিজের ও দেশের স্বপ্নপূরণই এই ধ্যান-জ্ঞান বজরংয়ের।