প্রায় দু বছর পরে জানুয়ারিতে কোর্টে ফিরেছেন তিনি। প্রথমে চোট ও পরে মাতৃত্বকালীন ছুটিতে যাওয়ায় তাকে কোর্টে দেখা যায়নি প্রায় দু বছর। এসেই নেমেছিলেন হোবার্ট ইন্টারন্যাশনাল টুর্নামেন্টে। সেখানে জিততে না পারলেও তার পারফরম্যান্স ভক্তদের স্বস্তি দিয়েছিল। মূলত অস্ট্রেলিয়া ওপেনের অনুশীলন মঞ্চ হিসাবেই বেছে নিয়েছিলেন তিনি হোবার্টের টুর্নামেন্টটিকে। এর আগেও ডাবলসে ৬ টি গ্র্যান্ডস্ল্যাম জিতেছেন তিনি। হয়েছেন ডাবলসের ১ নম্বর খেলোয়াড়। কিন্তু অস্ট্রেলিয়ান ওপেনে কাফ মাসেলে চোট পেয়েছিলেন তিনি। এখন সেই চোট সরিয়ে ফিরেছেন দুবাই ওপেনে। আর ফিরেই পৌঁছে গেলেন কোয়ার্টার ফাইনালে।

ফ্রেঞ্চ সতীর্থ ক্যারোলিনা গার্সিয়ার সাথে জুটি বেঁধে দুবাই ওপেনে খেলছেন তিনি। শেষ ষোলোতে তাদের প্রতিপক্ষ ছিল রাশিয়ার আলা কুদর্যাভেটসভা এবং স্লোভানিয়ার ক্যাটরিনা শ্রীবটনিকে। হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ের পর ম্যাচ পৌঁছয় তৃতীয় সেটে। শেষপর্যন্ত ৬-৪, ৪-৬, ১০-৮ ফলে ম্যাচ জিতে নেয় সানিয়া-ক্যারোলিনা জুটি। 

অস্ট্রেলিয়া ওপেনে চোট পাওয়ার পর প্রথমবার কোনো টুর্নামেন্টে নেমেছেন সানিয়া। কাফ মাসেলে চোট পাওয়ায় টুর্নামেন্টের মাঝপথেই টেনিস থেকে সরে দাঁড়িয়েছিলেন তিনি। ইচ্ছে করেই দুবাই ওপেনের মিক্সড ডাবলস থেকে নিজেকে সরিয়ে রেখেছিলেন সানিয়া। এখন সম্ভবত তার ফল পাচ্ছেন। যদিও এখনই ট্রফি জিতে ফেলেছেন মনে করছেন না সানিয়া। ম্যাচ প্রতি ম্যাচ ধরে এগোতে চাইছেন তিনি।