জাপানের ওসাকা শহরে অনুষ্ঠিত জি-২০ সম্মেলনে আবারও মুখোমুখি হলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প এবং রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন। ২০১৬-র রাষ্ট্রপতি নির্বাচন যেন কিছুতেই পিছু ছাড়ছে না মার্কিন রাষ্ট্রপতির। তাই জি-২০ সম্মেলনে এসেও যেন রাশিয়ার প্রেসিডেন্টকে এক হাত নিলেন ট্রাম্প। 

২৮ ও ২৯ জুন ধরে চলা জি-২০ সম্মেলনের আজ ছিল প্রথম দিন। এদিন দফায় দফায় বিভিন্ন দেশের রাষ্ট্রনেতারা বৈঠক করেছেন। আজ মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র এবং রাশিয়ার বৈঠক শুরু হওয়ার আগে সাংবাদিকদের প্রশ্নের মুখোমুখি হন ডোনাল্ড ট্রাম্প। সাংবাদিক সম্মেলনে ট্রাম্পকে প্রশ্ন করা হয় যে, রাশিয়ার সঙ্গে দ্বিপাক্ষিক বৈঠকে ২০১৬ সালের আমেরিকার নির্বাচনের প্রসঙ্গটি নিয়ে তিনি কোনও কথা বলবেন কি না। এই প্রসঙ্গে ট্রাম্প বলেন, তিনি অবশ্যই এই প্রসঙ্গে কথা বলবেন। ঠিক সেই সময়েই পাশে বলেছিলেন পুতিন। তার কথা শুনে অনুবাদকের কাছে তার অর্থ জানতে চান পুতিন। সবটা বুঝে নেওয়ার পর ট্রাম্পের দিকে তাকিয়ে হেয়ে ফেলেন তিনি। 

প্রসঙ্গত, ২০১৬ সালে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের নির্বাচনে রাশিয়ার হস্তক্ষেপের বিষয়টি নিয়ে যথেষ্ট বিব্রতকর পরিস্থিতিতে পড়েছিলেন ট্রাম্প। সেবার ডেমোক্র্যাটদের তরফে অভিযোগ করা হয়েছিল যে, মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে জিতে আসার পর রিপাবলিকান পার্টির ডোনাল্ড ট্রাম্পকে গোপনে মদত দিচ্ছেন পুতিন। আর সেই অভিযোগের ভিত্তিতে তদন্তও শুরু হয়েছিল। সেই ঘটনার প্রসঙ্গ টেনেই পরের নির্বাচনে যেন তিনি হস্তক্ষেপ না করেন, সেই কথাই বলেন তিনি। প্রসঙ্গত, গত বছরের জুলাইয়ে হেলসিংকিতে ট্রাম্প-পুতিন মুখোমুখি হওয়ার পর আবার তাঁরা মুখোমুখি হলেন।