ভোটের আগে মতুয়াদের মন রাখতে বাংলায় আসছে অমিত শাহ। বিজেপির সূত্রের খবর, ৩০ জানুয়ারি বাংলায় ঠাকুরনগরে মতুয়া সম্প্রদায়ের কাছে আসছেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী অমিত শাহ। তাই সিএএ নিয়ে বড় ঘোষণার সম্ভাবনা রয়েছে।

বনগাঁর বিজেপি সাংসদ শান্তনু ঠাকুর দাবি করেছেন, জানুয়ারি মাসেই ঠাকুরনগরে সভা করবেন স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী অমিত শাহ। এদিকে খবর জানতে পেরে চুপ বসে নেই তৃণমূলও। তাই পাল্টা সভার প্রস্তুতি নিচ্ছে তৃণমূলও। ঠাকুরবাড়ির কামনা সাগরের পাশেই স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সভা হওয়ার কথা।  মঙ্গলবারই মাঠ পরিদর্শন করেন বেজিপি সাংসদ। তিনি আরও জানিয়েছেন, সভা থেকে সিএএ অর্থাৎ নাগরিকত্ব আইন নিয়ে সরকারের পরিকল্পনা করে জানাবেন অমিত শাহ।


প্রসঙ্গত , ডিসেম্বরে বাংলায় দুইদিনের সফরে আসলেও কর্মসূচিতে বাদ যায়  উত্তর ২৪ পরগণা। তাই এবার বাংলায়  এসে সবার আগে ঠাকুরনগরে মতুয়া সম্প্রদায়ের কাছে যাবেন শাহ। এদিকে তা নিয়ে যথেষ্ট জল ঘোলাও হয়। ছন্দ কাটেন বনগাঁর বিজেপি সাংসদ শান্তনু ঠাকুর। মতুয়াদের নাগরিকত্বের প্রশ্নে কেন্দ্রের ভূমিকা আরও জোরদার করতে প্রসঙ্গ তোলেন তিনি। সম্প্রতি মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বনগাঁয়া বিশাল সমাবেশ করে মতুয়া সম্প্রদায়ের মন জয়ের চেষ্টা করেছেন।  'মতুয়ারা যে এদেশেরই নাগরিক এবং আলাদা করে তাঁদের আর কোনও পরিচয় পত্রের দরকার নেই', তা দৃঢ়ভাবে তাঁদের বুঝিয়ে এসেছেন মমতা। মতুয়াদের প্রতি এই মনভাবকে স্বাগত জানান আবার বিজেপি সাংসদ শান্তনু ঠাকুর। আর পরেই জল ঘোলা হয়। তবে এবার সেই সবকিছুকে ঠিক করতে নতুন বছরে মতুয়াদের দেশে পাড়ি দেবেন অমিত শাহ।