Asianet News BanglaAsianet News Bangla

Murder: প্রেমের প্রস্তাবে 'না', এক কোপে ধড় ও মুণ্ড আলাদা করে দিল 'খুনি' প্রেমিক

মৃতা স্কুল ছাত্রীর নাম অঙ্কিতা শীল। দশম শ্রেণিতে পড়ত। নিহতে আত্মীয়রা জানিয়েছে স্কুল যাওয়ার জন্য সকালে বাড়ি থেকে বেরিয়েছিল অঙ্কিতা।

alipurduar youth brutally killed minor girl due to Rejected in love bsm
Author
Kolkata, First Published Nov 24, 2021, 4:17 PM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

এক চরম নৃশংস ঘটনার সাক্ষী থাকল আলিপুরদুয়ার (Alipurduar)। স্কুল যাওয়ার পথে এক কিশোরীকে কুপিয়ে খুন (Murder) করল এক তরুণ। প্রত্যক্ষদর্শীর জানিয়েছে দা-এর এক কোপে ধড় ও মুণ্ড আলাদা করে দিয়েছে এই দুষ্কৃতী। এই ঘটনায় রীতিমত আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে আলিপুরদুয়ারের ফালাকাটার খালিসামারি এলাকা। 

মৃতা স্কুল ছাত্রীর নাম অঙ্কিতা শীল। দশম শ্রেণিতে পড়ত। নিহতে আত্মীয়রা জানিয়েছে স্কুল যাওয়ার জন্য সকালে বাড়ি থেকে বেরিয়েছিল অঙ্কিতা। সেই সময়ই প্রতিবেশী যুবক স্বপন বিশ্বাস তার ওপর চড়াও হয়। অঙ্কিতা কিছু বুঝে ওঠার আগেই তার মুখ গামছা দিয়ে বেঁধে দেয়। তারপর চুল টেনে নিজের কাছে নিয়ে গিয়ে দা দিয়ে গলায় কোপ মারে। ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় অঙ্কিতার। 

নৃশংস এই বর্বর ঘটনা দেখেছিল অঙ্কিতার এক বোন। সে জানিয়েছে স্বপন তার দিদিকে খুন করেছেন। গামছা দিয়ে মুখ বেঁধে দিয়ে বারবার গলায় দা দিয়ে কোপ মেরেছে। গোটা এলাকা রক্তে ভেসে গেছে। সে এই ঘটনা দেখে ফেলায় তাকেই খুনের হুমকি দেয় অভিযুক্ত তরুণ। এই ঘটনায় অঙ্কিতার বোন কিছুটা ভয় পেয়ে যায়। 

Covid 19 deaths: গুজরাটের ভোটে কংগ্রেসের হাতিয়ার কোভিড মৃত্যু, রাহুল গান্ধীর ভিডিও ঘিরে জল্পনা

Miracle: 'মৃত ব্যক্তি' শ্বাস নিল মর্গের ফ্রিজারে, অলৌকিক ঘটনার সাক্ষী সরকারি হাসপাতাল

Afghan Girl: বিয়ের নামে ২০ দিনের শিশুকন্যা বিক্রি, বাল্যবিবাহের ভয়ঙ্কর ছবি আফগানিস্তানে

ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে ফালাকাটা থানা। পুলিশ সূত্রের খবর, নাবালিকা খুনে অভিযুক্ত স্বপনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। কিন্তু সে পুরোপুরি নির্বাবিকার রয়েছে। পুলিশ জানিয়েছে, নৃশংস হত্যাকাণ্ডের পরেই নির্বিকার ছিল। ভাবলেশহীন অবস্থায় অঙ্কিতাকে খুনের পর হাতে ও গায়ে লেগে থাকা রক্ত ধুয়ে ফেলেছিল। ধুরে পরিষ্কার করেছিল অস্ত্রটিও। বাড়িতে বসে খাবার খাচ্ছিল। যা কিছুটা হলেও বিভ্রান্ত করেছে তদন্তকারীদের।

স্থানীয় সূত্রে খবর অঙ্কিতাকে দীর্ঘ দিন ধরেই প্রেমের প্রস্তাব দিয়ে এসেছিল স্বপন। কিন্তু সে তা বারবার ফিরিয়ে দিয়েছিল। প্রায়ই স্বপন অঙ্কিতাকে উত্যক্ত করত। কিন্তু বুধবার যে যে অঙ্কিতাকে খুন করে তা স্বপ্নেও ভাবেনি প্রতিবাশেরী। নৃশংসভাবে অঙ্কিতাকে খুন করে বাড়ি ফিরে গিয়েছিল সে। স্থানীয় বাসিন্দারাই পুলিশে খবর দেয়। বিশাল বাহিনী নিয়ে ঘটনাস্থলে আসে ফালাকাটা থানার পুলিশ। বাড়ি থেকেই গ্রেফতার করে স্বপনকে। প্রাথমিক তদন্তে অনুমান, স্ববন ঠান্ডামাথায় অঙ্কিতাকে খুনের ছক কষেঠিল। কিন্তু এই ঘটনার পিছনে শুধুই কী প্রতিশোধ স্পৃহা রয়েছে না অন্য কোনও কারণ রয়েছে তাও খতিয়ে দেখা হবে বলে পুলিশ সূত্রের খবর।

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios