Asianet News BanglaAsianet News Bangla

ভবানীপুরের গুজরাটি-হিন্দিভাষীদের টার্গেট, তিন ভাষায় বক্তব্য রেখে মন জয়ের চেষ্টা প্রিয়াঙ্কার

ভবানীপুরের অবাঙালি ভোটারদের টার্গেট করে প্রচারে জোর দিচ্ছে বিজেপি। এবার গুজরাটি ভাষায় বক্তব্য রাখলেন ভবানীপুর উপনির্বাচনের বিজেপি প্রার্থী প্রিয়াঙ্কা টিবরেওয়াল।

BJP insists on campaigning targeting non-Bengali voters in Bhabanipur  bpsb
Author
Kolkata, First Published Sep 24, 2021, 9:56 PM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

জমে উঠেছে ভবানীপুর কেন্দ্রের উপনির্বাচনের(Bhabanipur By Election 2021) লড়াই। একের পর এক রক্ত গরম করা বক্তব্য রাখছে তৃণমূল (TMC), বিজেপি (BJP)। শুক্রবার সান্ধ্যকালীন প্রচার ও মিটিংয়ে সেরকমই ছবি দেখা গেল। ভবানীপুরের অবাঙালি ভোটারদের (Non Bengali Voter) টার্গেট করে প্রচারে জোর দিচ্ছে বিজেপি। এবার গুজরাটি ভাষায় বক্তব্য রাখলেন ভবানীপুর উপনির্বাচনের বিজেপি প্রার্থী প্রিয়াঙ্কা টিবরেওয়াল(Priyanka Tibrewa)। 

নিজের বক্তব্য গুজরাটি ভাষায় হলেও, সেই বক্তব্যের ঝাঁঝ ছিল প্রতিদ্বন্দ্বী তৃণমূল ও মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের দিকেই। একের পর এক চাঁচাছোলা ভাষায় তৃণমূলকে আক্রমণ করেন প্রিয়াঙ্কা। গুজরাটি ভাষায় বক্তব্য রাখার পাশাপাশি তিনি বাংলা ও হিন্দিতেও বক্তব্য রাখেন। তিনি  ভোটারদের অভয়ের সুরে বলেন আপনারা ভয় পাবেন না, ভোট দিন, কেউ যদি জলের লাইন কাটতে আসে, ঘাবড়াবেন না। 

আরও পড়ুন- আগে ভেড়া ছিল,এখন ছাগল এসেছে', বিজেপির নতুন রাজ্য সভাপতিকে নিয়ে মুখ খুললেন অনুব্রত মণ্ডল

তাঁর দাবি, তিনি আদালতে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে নাস্তানাবুদ করেছেন। ভোটের বাক্সেও সেই ফলই আসবে। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে আক্রমণ করে প্রিয়াঙ্কা বলেন মুসলিমদের দুধেল গাই বলেন মমতা। তাহলে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী কোনও মুসলিমকে কেন করা হচ্ছে না। কারণ তিনি পদ ছাড়বেন না। 

আরও পড়ুন- শাঁখ কেন তিনবার বাজানো হয় জানেন, রয়েছে অদ্ভুত কারণ

তৃণমূল কংগ্রেসকে প্রাইভেট লিমিটেড কোম্পানি বলে উল্লেখ করে প্রিয়াঙ্কা বলেন এরপরে ভাইপো মুখ্যমন্ত্রী হবে। এদিন নির্বাচন কমিশনে চিঠি পাঠিয়ে সরাসরি কলকাতা পুলিশের ডিসি সাউথ আকাশ মাঘারিয়ার বিরুদ্ধে শ্লীলতাহানির অভিযোগ তুলেছে বিজেপি। ভবানীপুরের প্রার্থী  প্রিয়াঙ্কা টিব্রেওয়ালের সেই শ্লীলতাহানির শিকার হয়েছেন বলে দাবি।  
বিজেপির দাবি, কোভিড বিধি মেনে শান্তিপূর্ণভাবে মৃতদেহ নিয়ে যাচ্ছিল বিজেপি। কিন্তু ডিসিপির নেতৃত্বে পুলিশ আধিকারিকরা এসে মিছিল ভঙ্গ করে। মারধর করেও বলে অভিযোগ। এখানেই শেষ নয়, একই সঙ্গে অর্জুন সিং, সুকান্ত মজুমদার, জ্যোতিময় সিং মাহাতোকে শারীরিকভাবে নিগ্রহ করা হয়েছে। তাই অবিলম্বে অভিযুক্ত আধিকারিকদের সরানোর দাবিতে সরব বিজেপি। 

আরও পড়ুন-  Indian Railway Job -ভারতীয় রেলে চাকরির দারুণ সুযোগ, দিতে হবে না কোনও লিখিত পরীক্ষা

প্রসঙ্গত, বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় মুখ্যমন্ত্রীর বাড়ির সামনে মগরাহাটের   বিজেপি প্রার্থী মানস সাহার (BJP Candidate Manas Saha) মৃতদেহ (Dead Body) নিয়ে বিজেপির  মিছিল শুরু হতেই ভয়াবহ পরিস্থিতি শুরু হয়। ঘটনাস্থলে ছুটে যায় পুলিশের বিশালবাহিনী। রাস্তায় বসে পড়ে পথ অবরোধ করেন বিজেপি রাজ্য সভাপতি সুকান্ত মজুমদার , অর্জুন সিংহ, ভবানীপুরের বিজেপি প্রার্থী প্রিয়াঙ্কা টিব্রেওয়াল।

প্রিয়াঙ্কা টিব্রেওয়াল বলেন,'তৃণমূলের হিংসার বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানানোর সময়, ডিসিপি আমার সঙ্গে ঠিক এমনই আচরণ করেছেন। আর তারপর পুলিশ আমার বিরুদ্ধেই স্বতঃপ্রণোদিত মামলা করেছে।  পাশাপাশি ভোটপরবর্তী হিংসায় বিজেপি প্রার্থী মানস সাহার মৃত্যুতে 'মুখ্যমন্ত্রীর বিরুদ্ধে খুনের মামলা হোক' বলেও হুঁশিয়ারি ছুড়েছেন এদিন প্রিয়ঙ্কা।

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios