বিধানসভা ভোট যতই এগিয়ে আসছে, ততই হিংসা ও অশান্তির ঘটনা বাড়ছে বাংলায়। বিজেপি করায় এক ব্যক্তির বাড়িতে হামলা চালাল একদল দুষ্কৃতীরা। রাতের অন্ধকারে বাড়িতে চড়াও হয়ে ভাঙচুর চালানো হয়। সে বিজেপি করায় তাঁর উপর তৃণমূলের লোকেরা চড়াও হয়েছে বলে অভিযোগ আক্রান্ত ওই ব্যক্তির। বাড়িতে হামলা চালিয়ে তাঁদের পরিবারকে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করা হয় বলেও অভিযোগ।

আরও পড়ুন-২ দিনের উত্তরবঙ্গ সফরে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, জলপাইগুড়ি ও কোচবিহারের রাজনৈতিক সমাবেশ

চাঞ্চল্যকর ঘটনাটি ঘটেছে, দক্ষিণ ২৪ পরগনার বিষ্ণুপুর থানা এলাকার রাম মাখাল চকে। জানাগেছে, গতকাল রাতে বিজেপির বুথ সভাপতি অরুন মণ্ডলের বাড়িতে চড়াও হয় একদল দুষ্কৃতী। রাতের অন্ধকারে বাড়ির সামনে এসে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ শুরু করে দুষ্কৃতীরা। বিজেপি নেতা অরুণ মণ্ডলকে বারবার ডাকতে থাকে। কিন্তু তিনি বাড়িতে না থাকায় তাঁর স্ত্রীকে গালিগালাজ করা হয় বলে অভিযোগ। এরপরই বাড়িতে চড়াও হয়ে ভাঙচুর চালায় দুষ্কৃতীরা।

আরও পড়ুন-এবার বেসুরো আসানসোলের মেয়র, কেন্দ্রীয় প্রকল্পের টাকা কোথায়, ফিরহাদকে হুমকি চিঠি জিতেন্দ্র তিওয়ারির

বিজেপি নেতা অরুণ মণ্ডলের অভিযোগ, বিজেপি করায় তাঁর বাড়িতে চড়াও হয় তৃণমূল আশ্রিত দুষ্কৃতীরা। ঘটনার পরই বিষ্ণুপুর থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন তিনি। তাঁর অনুপস্থিতিতে বাড়িতে হামলা হওয়ার জেরে আতঙ্কিত পরিবার। আক্রান্ত ওই বিজেপি নেতার বাড়িতে পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। অন্যদিকে, তৃণমূলের দাবি, ''দলের বিরুদ্ধে মিথ্যা অভিযোগ করা হচ্ছে। অরুন মণ্ডলের বাড়িতে হামলার ঘটনায় তাঁরা কেউ জড়িত নয়। তবে ওই বিজেপি নেতা চোলাই মদ বিক্রি করায় তাঁর উপর ক্ষোভ রয়েছে গ্রামবাসীদের''।