Asianet News BanglaAsianet News Bangla

Metro Dairy case: মেট্রো ডেয়ারি মামলার তদন্ত করতে প্রস্তুত সিবিআই, অস্বস্তিতে রাজ্য

দিলীপ ঘোষ বলেন, "সিবিআইয়ের উপর লোকের ভরসা রয়েছে। সিবিআই তদন্ত করতে রাজিও আছে। অতএব, যেভাবে নারদা, সারদার উপর কোর্ট দায়িত্ব দিয়েছেন, মানুষের ইচ্ছার উপরে গুরুত্ব দিয়ে এটারও তদন্ত দেওয়া উচিত। তা না হলে রাজ্য সরকারের এত বড় দুর্নীতি প্রকাশ্যে আসবে না।"

CBI ready to probe Metro Dairy case says dilip ghosh bmm
Author
Kolkata, First Published Nov 10, 2021, 1:59 PM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

মেট্রো ডেয়ারির শেয়ার (Metro Dairy share) বিক্রি করা নিয়ে মামলা করেছিলেন কংগ্রেস নেতা অধীর চৌধুরী (Adhir Ranjan Chowdhury)। সেই মামলায় এবার নয়া মোড়। এর জেরে কিছুটা হলেও অস্বস্তিতে রাজ্য সরকার। মেট্রো ডেয়ারির শেয়ার জলের দরে সিঙ্গাপুরের (Singapore) সংস্থাকে বিক্রির অভিযোগ উঠেছে। এই ঘটনায় সিবিআই (CBI) তদন্তের দাবি জানালেন বিজেপির (BJP) সর্বভারতীয় সহ সভাপতি দিলীপ ঘোষ (Dilip Ghosh)। 

এই মামলা প্রসঙ্গে দিলীপ ঘোষ বলেন, "সিবিআইয়ের উপর লোকের ভরসা রয়েছে। সিবিআই তদন্ত করতে রাজিও আছে। অতএব, যেভাবে নারদা, সারদার উপর কোর্ট দায়িত্ব দিয়েছেন, মানুষের ইচ্ছার উপরে গুরুত্ব দিয়ে এটারও তদন্ত দেওয়া উচিত। তা না হলে রাজ্য সরকারের এত বড় দুর্নীতি প্রকাশ্যে আসবে না।"

আরও পড়ুন- মেদিনীপুরে হস্টেলে উদ্ধার ডাক্তারির ছাত্রীর ঝুলন্ত দেহ, মিলেছে সুইসাইড নোট

এদিকে মেট্রো ডেয়ারি বিক্রি সংক্রান্ত ঘটনার তদন্ত করতে যে সিবিআই রাজি রয়েছে তা মঙ্গলবার হাইকোর্টকে (Kolkata Highcourt) জানিয়েছে কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা। সিবিআইয়ের তরফে জানানো হয়েছে, যদি আদালত নির্দেশ দেয় তবে এই মামলার তদন্ত করতে তারা প্রস্তুত। 

আরও পড়ুন- 'সিঙ্গুর' আজও বেকার চাষ নেই শিল্পও নেই বর্তমান সরকারের কাছে কাতর আর্জি স্থানীয়দের
 
উল্লেখ্য, ২০১১ সালে ক্ষমতায় আসার পর থেকে এই সংস্থাটিকে একমাত্র বিলগ্নীকরণ করেছিল রাজ্য সরকার। বেসরকারি সংস্থার কাছে বেচে দেওয়া হয়েছিল ৪৭ শতাংশ শেয়ারে। তবে সেই শেয়ার বিক্রির ক্ষেত্রে ব্যাপক দুর্নীতি হয়েছে বলে অভিযোগ তুলেছিলেন অধীর চৌধুরী। কেন্দ্রীয় তদন্তের দাবি জানিয়ে ২০১৮ সালে জনস্বার্থ মামলা করেছিলেন তিনি। তাঁর পিটিশনে অভিযোগ তোলা হয়েছিল, ২০১৭ সালে রাজ্যের তরফে এই ডেয়ারির ৪৭ শতাংশ শেয়ার ক্যাভেন্টার অ্য়াগ্রো লিমিটেডকে বিক্রির অনুমোদন দিয়েছিল। সেই সময় একমাত্র বিডার ছিল ওই সংস্থা। প্রায় ৮৫ কোটি টাকায় বিক্রি করা হয়েছিল এই শেয়ার। এরপর কোম্পানির পুরো মালিকানা পাওয়ার পরেই সিঙ্গাপুরের একটি কোম্পানির কাছে ১৫ শতাংশ শেয়ার বিক্রি করে ক্যাভেন্টার। সেই শেয়ার বিক্রি হয়েছিল ১৩৫ কোটি টাকায়। এখানেই আপত্তি জানিয়েছিলেন অধীর। তাঁর অভিযোগ জনগণের টাকায় তৈরি একটি কোম্পানির শেয়ার অত্যন্ত কম দামে ক্যাভেন্টারকে বিক্রির মাধ্যমে ৫০০ কোটি টাকা ক্ষতি করেছে রাজ্য সরকার। এ প্রসঙ্গে অধীর বলেন, "আমার মনে হয়েছে, এর নিরপেক্ষ সুস্থ তদন্ত হওয়া প্রয়োজন। জলের দরে বেসরকারি সংস্থাকে বিক্রি করা হয়েছে। হাইকোর্টের দ্বারস্থ হয়েছিলাম। এর সত্যতা জানা উচিত মানুষের।" 

আরও পড়ুন- ছাত্র-ছাত্রীরা কোভিড আক্রান্ত হলে দায় নেবে না স্কুল, সাফ জানাল শহরের শিক্ষা প্রতিষ্ঠান
 
গত তিন বছর ধরে এই মামলার একাধিকবার শুনানি হয়েছে। এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট (Enforcement Directorate) ২০১৯ সালে ক্যাভেন্টারের একাধিক কর্তা, সরকারি আধিকারিকদের জেরা করেছিল। ১৬ ডিসেম্বর এই মামলার চূড়ান্ত শুনানি। ১০ ডিসেম্বরের মধ্যে সবপক্ষকে অবস্থান জানানোর নির্দেশ দিয়েছে হাইকোর্টের প্রধান বিচারপতির ডিভিশন বেঞ্চ। তবে এই মামলার তদন্ত করতে সিবিআই প্রস্তুত রয়েছে। ফলে আদালতের অনুমতি পেলেই তদন্ত শুরু করবে তারা।

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios