উত্তম দত্ত, হুগলি : উত্তর প্রদেশের অযোধ্যয় বহু প্রতীক্ষিত রামমন্দির নির্মাণের জন্য  ভূমি পূজন অনুষ্ঠিত হতে চলছে আগামী ৫ অগস্ট । সেই পুজোর জন্য পবিত্র গঙ্গাজল এবং গঙ্গা মাটি  যাচ্ছে হুগলি জেলার ত্রিবেণী ঘাট থেকে। রবিবার ভোর রাতে  হুগলি জেলা বিশ্বহিন্দু পরিষদের পক্ষ থেকে এই মহৎ কর্মসূচির আয়োজন করা হয়।

ভোর ৪টে নাগাদ  ত্রিবেণী ঘাটে উপস্থিত হন জেলার বিভিন্ন প্রান্তের দলীয় কর্মীরা। ছিলেন বিশ্বহিন্দু পরিষদের জেলা  সম্পাদক বিপ্লব অধিকারী, ও সুশান্ত মল্লিক । এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন আরএসএস-এর দায়িত্ব প্রাপ্ত দুই প্রধান বীরেন পাল এবং আশিস মন্ডল । ত্রিবেণী ঘাট অত্যন্ত পূণ্য স্থান হিন্দুদের কাছে । গঙ্গা , কুন্তী ও সরস্বতী নদীর মিলনস্থল বলে ত্রিবেণী নাম। 

ভিএইচপি এবং আরএসএস-এর কর্মীরা সকলে মিলে বেশ কয়েকটি নৌকা নিয়ে  মাঝগঙ্গায় যান এবং  তিনটি নদীর মিলন স্থল থেকে জল সংগ্রহ করেন। ঘাটে ফিরে এসে পূজা অর্চনার মাধ্যমে সেই জল ও পবিত্র গঙ্গা মাটি নিয়ে তাঁরা রওনা দেন  কলকাতার বিশ্বহিন্দু পরিষদের মুখ্য কার্যালয়ে ।  সেখান থেকে আজই সকাল ৮টা নাগাদ উত্তর প্রদেশের উদ্দেশ্যে জল নিয়ে রওনা দেওয়ার কথা  রাজ্য ও জেলার কার্যকর্তাদের।

ভূমি পুজোর দিন  সেখানে উপস্থিত থাকার কথা প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর। দেশের রাজনৈতিক দলিল বলছে,মোদী সরকার ক্ষমতায় আসার পর অবশেষে রাম মন্দির ইস্যু বাস্তবায়ন করতে পারছে বিজেপি। দেশের হিন্দু ভোট ব্যাঙ্কের এই আবেগকে কাজে লাগিয়েই ক্ষমতায় আসে মোদী সরকার। বহু প্রতীক্ষিত অযোধ্য়ায় রাম মন্দির নির্মাণের দিকে তাকিয়ে ছিল গোটা দেশ। অবশেষে সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশে প্রতিষ্ঠিত হতে চলেছে রাম মন্দির।