নাগরিকত্ব আইন নিয়ে অমিত শাহকে আক্রমণ করতে গিয়ে শালীনতার সীমা ছাড়ালেন শ্রীরামপুরের তৃণমূল সাংসদ কল্যাণ বন্দ্যোপাধ্য়ায়। শনিবার রিষড়া মেলার উদ্বোধনে গিয়ে তৃণমূল সাংসদ বলেন, 'অমিত শাহের টাকে চুল গজিয়ে যাবে, তবু বাংলা থেকে একজনকেও তাড়াতে দেওয়া হবে না।' 

শুধু তাই নয়, ক্ষমতা থাকলে বাংলায় এসে এনআরসি কার্যকর করে দেখানোর জন্যও কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে চ্যালেঞ্জ করেছেন কল্যাণবাবু। তিনি বলেন, 'অনেকে বড় বড় বক্তৃতা দিচ্ছেন। হিম্মত থাকলে বাংলায় চলে এসো। কোথায় রাজস্থানে দাঁড়িয়ে বক্তৃতা দিচ্ছ! ক্ষমতা থাকলে বাংলা থেকে একটা মানুষকেও তাড়িয়ে দেখাও। অমিত শাহ তোমাকে চ্যালেঞ্জ দিলাম।'

আরও পড়ুন- 'অমিত শাহের টাকে চুল গজালেও বাংলায় এনআরসি হবে না', অশালীন আক্রমণ কল্যাণের, দেখুন ভিডিও

বাংলায় এসে এনআরসি কার্যকর করে একজনকেও তাড়িয়ে দেখানোর জন্য কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে চ্যালেঞ্জ ছুড়ে দেন কল্যাণবাবু। শুধু তাই নয়, প্রয়াত মুখ্যমন্ত্রী জ্যোতি বসুর প্রসঙ্গও টেনে আনেন তৃণমূল সাংসদ। তিনি বলেন, 'একটা সময় মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নাম শুনলেই জ্যোতি বসুর চুল খাড়া হয়ে যেত, আর নাপিত এসে চুলে কেটে দিত। আর এখন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নাম শুনলেই দুই ভাই নরেন্দ্র মোদী ও অমিত শাহের রাতের ঘুম উড়ে যায়, ডাক্তার ডাকতে হয়।'

কল্যাণবাবু অভিযোগ করেন, এনআরসি- নাগরিকত্ব আইন কার্যকর হলেই পুরনো নথি চেয়ে মানুষকে হয়রান করা হবে। তিনি বলেন, 'একটা অদ্ভুত সময়ের মধ্যে দিয়ে আমরা সবাই যাচ্ছি। এর বিরুদ্ধে আগামী দিনে আমাদের সবাইকে একসঙ্গে লড়তে হবে।