রিয়েল হিরো মানিক মহম্মদ, দুর্গা বিসর্জনে মৃত্যুর মুখ থেকে ফেরালেন ১০ জনকে

| Oct 06 2022, 11:16 PM IST

রিয়েল হিরো মানিক মহম্মদ, দুর্গা বিসর্জনে মৃত্যুর মুখ থেকে ফেরালেন ১০ জনকে

সংক্ষিপ্ত

হড়পা বানের জল যখন হুহু করে মরা মাল নদীতে ঢুকছে তখন খড়কুটোর মত ভেসে যাচ্ছিল স্থানীয় বাসিন্দারা। চর আঁকড়ে বাঁচার চেষ্টা করছে সকলে তখনই সম্পূ্ণ অন্য পথে হেঁটেছিলেন এক হলুদ শার্ট পরা তরুণ

হড়পা বানের জল যখন হুহু করে মরা মাল নদীতে ঢুকছে তখন খড়কুটোর মত ভেসে যাচ্ছিল স্থানীয় বাসিন্দারা। চর আঁকড়ে বাঁচার চেষ্টা করছে সকলে তখনই সম্পূ্ণ অন্য পথে হেঁটেছিলেন এক হলুদ শার্ট পরা তরুণ। জীবন উপেক্ষা করে ভড়া নদীতে ঝাঁপিয়ে পড়েছিলেন ভেসে যাওয়াদের ডাঙায় ফিরিয়ে আনতে। তিনি মহম্মদ। প্রাকৃতিক দুর্যোগ তাঁকে ভুলিয়ে দিয়েছিল জাতি ধর্মের বৈষম্য। স্থানীয়দের দাবি কমপক্ষে ১০ জন মানুষকে নিজের চেষ্টায় মৃত্যুর মুখ থেকে ফিরিয়ে এসেছিলেন মহম্মদ। সোশ্যাল মিডিয়ায় রীতিমত ধন্য ধন্য শুরু হয়ে গেছে মহম্মদকে নিয়ে। 

স্পটে দাঁড়িয়ে বিভিন্ন মানুষের তোলা মোবাইল ভিডিওতে, দেখা যাচ্ছে এই ঘটনা। বিসর্জনের দিনে ত্রাতার ভূমিকায় নেমে অন্যতম রিয়েল হিরো মহম্মদ মানিক। বুধবার, দশমীর রাত। জলপাইগুড়ির মালবাজারের মাল নদীতে, সকলেই তখন প্রতিমা বিসর্জন দেখছিলেন। ডুয়ার্সের মালবাজার শহরের পাশাপাশি থাকা বিভিন্ন চা-বাগান এলাকা থেকে, পুজো উদ্যোক্তারা তাঁদের প্রতিমা নিয়ে, বিসর্জন দিতে আসেন নদীতে। আর সেই বিসর্জন দেখতে ডুয়ার্সের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে, কয়েক হাজার মানুষ বিসর্জন ঘাটে জড় হয়েছিলেন। আর তাদের মাঝেই হাজির ছিলেন, ডুয়ার্সের তেশিমলা গ্রামের যুবক মহম্মদ মানিক।

Subscribe to get breaking news alerts

যখন প্রতিমা বিসর্জন দেওয়া যখন চলছিল মাল নদীতে, তখনই আচমকা নদীতে হড়পা বান আসে। চোখের সামনে, বহু মানুষকে ভেসে যেতে দেখেন মানিক। আর সেই দৃশ্য দেখে কোনও কথা চিন্তা না করেই,ঝাঁপিয়ে পড়েন নদীতে ভেসে যাওয়া মানুষদের বাঁচাতে। যে ঘটনায় হড়পা বানে জলে ভেসে গিয়ে, ৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। সেখানে মানিক জীবনের ঝুকি নিয়ে নদীতে ঝাঁপ দিয়ে, কম করেও ১০ জনকে জল থেকে পাড়ে উঠতে সাহায্য করে, প্রাণ বাঁচান তিনি।

তবে শুধু মানিকই নয় আরও বেশ কয়েকজন মানুষ, নিজের জীবনের ঝুঁকি নিয়ে, মাল নদীতে নেমে অনেক মানুষকে উদ্ধার করেন। কিন্তু ভিন্ন ধর্মের একজন মানুষ হয়ে, তিনি যেভাবে দুর্গা মায়ের ভক্তদের জন্য তিনি নিজের জীবনের ঝুঁকি নিলেন, তাতে প্রমাণ হয়, ধর্ম বর্ণের উর্ধ্বে উঠে, মানসিকতায় তিনিই একজন প্রকৃত মানুষ।

বিসর্জনের সময় হড়পা বানে যখন ভেসে যাচ্ছিল বহু মানুষ, তখন পাড়ে দাঁড়িয়ে মোবাইলে ভিডিও রেকর্ডিং না করে, মুহূর্তের সিদ্ধান্তে প্রবল স্রোতের মধ্যে ঝাঁপ দিয়ে, মানুষের প্রাণ বাঁচিয়েছেন মহম্মদ মানিক। পায়ে আঘাতও পান তিনি। তাই তিনি, ভাসানের সময় মালবাজারে ঘটে যাওয়া মর্মান্তিক দূর্ঘটনার সময় উঠে আসা প্রকৃত নায়কদের মধ‍্যে একজন। মানিক মহম্মদ, বিসর্জনের বিষাদে এক উজ্জ্বল জ্যোতিষ্কের মতই। ধর্মীয় হিংসা যখন গ্রাস করছে গোটা ভারতকে, তখন মানিক কোনও কথা না বলেও নিজের কাজের মাধ্যমেই দিলেন সম্প্রিতীর বার্তা। যা বিষাদের মধ্যেই পূর্বালী রাগের মতই শ্রুতি মধুর। 

'এসব ছেলেখেলা- আসল খেলা দিদি খেলতে জানেন', মাল নদীতে হড়পাবান নিয়ে মমতাকে নিশানা অধীরের

মাল নদীর গতিপথ ঘুরিয়ে দেওয়াতেই ভয়ঙ্কর হড়পা বান? প্রশ্ন এড়ালেন তৃণমূল নেতা

'মা দুর্গার ভক্তদের মেরে ফেরার ফাঁদ' মালবাজার নিয়ে বললেন শুভেন্দু, 'পরিকল্পতি খুন' বললেন সুকান্ত