মাত্র কয়েকঘণ্টার ব্যবধান। ছেলের পর মৃত্যু হল মায়েরও। মর্মান্তিক এই ঘটনায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে দক্ষিণ চব্বিশ পরগণার সোনারপুর থানা এলাকার আড়াপাঁচে ৷ মৃত দু' জনের নাম অজয় প্রামাণিক (২৬) এবং তাঁর মা পরিষ্কারি প্রামাণিক (৫৫)।

স্থানীয় সূত্রে খবর, দুই ছেলে অজয় এবং সঞ্জয়কে নিয়ে আড়াপাঁচের বাড়িতে থাকতেন পরিষ্কারি প্রামাণিক। ছোট থেকেই শারীরিকভাবে প্রতিবন্ধী ছিলেন অজয়। শয্যাশায়ী ছেলের যাবতীয় দেখাশোনা নিজে করতেন পরিষ্কারিদেবী। প্রতিবন্ধী স্নান করানো, খাইয়ে দেওয়া, সবকিছুই নিজে হাতে করতেন মা। এভাবেই কেটেছিল ছাব্বিশ বছর।

আরও পড়ুন- নবি দিবসেই মর্মান্তিক দুর্ঘটনা, বাবাকে বাঁচাতে গিয়ে তড়িদাহত ছেলেও

আরও পড়ুন- জিরো পয়েন্টে প্রবল শ্বাসকষ্ট, সিকিমে বেড়াতে গিয়ে মৃত্যু সোনারপুরের যুবকের

মৃত অজয়ের ভাই সঞ্জয় প্রামাণিক জানান, সোমবার দুপুর দুটো নাগাদ প্রথমে মারা যান তাঁর দাদা। ছেলের মৃত্যুর পরই ভেঙে পড়েন পরিষ্কারিদেবী। এমনিতেই তিনি অসুস্থ ছিলেন। চোখের সামনে ছেলের মৃত্যু দেখে আর নিজেকে সামলাতে পারেননি ওই প্রৌঢ়া। বিকেল সা়ড়ে পাঁচটা নাগাদ ছেলের মৃতদেহের সামনেই অসুস্থ হয়ে পড়েন তিনি। চিকিৎসক এসে পরিষ্কারিদেবীকেও মৃত বলে ঘোষণা করেন। 

গোটা ঘটনায় এলাকায় শোকের ছায়া নেমে আসে। খবর পেয়ে ওই বাড়িতে আসেন এলাকার পুর প্রতিনিধি রবিন সরকার। ওই পরিবারের পাশে থাকার আশ্বাস দিয়েছেন তিনি।