Asianet News BanglaAsianet News Bangla

পুলিশের ব্যারিকেডে বন্ধ হাওড়া ব্রিজ, মঙ্গলবার গন্তব্যে যেতে ৭০৫ মিটার হাঁটলেন নিত্যযাত্রীরা

কাউন্টডাউন শুরু হয়ে গেছে। আর কিছুক্ষণ পরেই বিজেপি নবান্ন অভিযান। কিন্তু তার আগেই নিরাপত্তার চাদরে মুড়ে ফেলা হয়েছে হাওড়া ও কলকাতার যোগাযোগের গুরুত্বপূর্ণ লাইফনাইন হাওড়া ব্রিজ। পুলিশের পক্ষ থেকে পূর্ব ঘোষণা অনুযায়ী রবীন্দ্র সেতুতে যান চলাচল সম্পূর্ণ বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে।

Nabanna Abhijan Howrah Bridge is closed by the Kolkata Police due to bjp rally bsm
Author
First Published Sep 13, 2022, 12:02 PM IST

কাউন্টডাউন শুরু হয়ে গেছে। আর কিছুক্ষণ পরেই বিজেপি নবান্ন অভিযান। কিন্তু তার আগেই নিরাপত্তার চাদরে মুড়ে ফেলা হয়েছে হাওড়া ও কলকাতার যোগাযোগের গুরুত্বপূর্ণ লাইফনাইন হাওড়া ব্রিজ। পুলিশের পক্ষ থেকে পূর্ব ঘোষণা অনুযায়ী রবীন্দ্র সেতুতে যান চলাচল সম্পূর্ণ বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। শুনশান হাওড়ার বাসডিপো। এই অবস্থায় সপ্তাহের প্রথম দিনেই চরম ভোগান্তিতে পড়তে হল নিত্যাযাত্রীদের। পায়ে হেঁটেই ৭০৫ মিটার (২৩১৩.০ ফুট) দৈর্ঘ্যের হাওড়ায় পার হতে হল গন্তব্যে যাওয়ার জন্য। 

হাওড়া জেলায় বেশ কিছু এলাকায় ১৪৪ ধারা জারি করেছে পুলিশ। নবান্নকে ঘিরে সব রাস্তায় ত্রিস্তরীয় নিরাপত্তা জারি করা হয়েছে। সাঁতরাগাছির সামনে বিশাল ব্যারিকেড দেওয়া হয়েছে পুলিশের পক্ষ থেকে। গঙ্গাবক্ষে পুলিশের বিশেষ টহলদারি চলছে। হাওড়া ফোর-শো রোডেও ব্যারিকেড দেওয়া হয়েছে। হাওড়া স্টেশন থেকে কেউ যাতে আসতে না পারে তার ব্যবস্থা করেছে পুলিশ। বিদ্যাসাগর সেতুর আগেও কড়া পুলিশি ব্যারিকেড রয়েছে। মোতায়েন করা হয়েছে জল কামান, বজ্র যান। ড্রোনের মাধ্যমে নজরদারি চালাচ্ছে পুলিশ। মোটকথা নিরাপত্তার সবরকম ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। 


র্নীতির বিরুদ্ধে বিজেপির নবান্ন অভিযান মঙ্গলবার। বিজেপি রাজ্যসভাপি হওয়ার পরে এটাই সুকান্ত মজুমদারের নেতৃত্বে সবথেকে বড় কর্মসূচি বিজেপির। তাই প্রথম থেকেই সক্রিয় তিনি। সকাল বেলাই জেলা থেকে আসা দলীয় কর্মীদের মলোবল চাঙ্গা করতে হাওড়া স্টেশনে পৌঁছে যান বিজেপি নেতা সুকান্ত মজুমদার। এদিন তিনি হাওড়ায় গিয়ে  সরাসরি নিশানা করেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে। তিনি বলেন, 'একদিকে প্রাকৃতিক দুর্যোগ। অন্যদিকে বিজেপি কর্মীদের আটকে রাখতে পুলিশের ধরপাড়ক। তারই মধ্যে লড়াই হবে। ' সুকান্ত মজুমদার আরও বলেন মমতা সরকার বিজেপিকে ভয় পেয়েছে। তাই আটকানোর চেষ্টা করা হচ্ছে। আর সেই কারণেই লড়াই হবে। প্রবল বৃষ্টি আর পুলিশের বাধা উপেক্ষা করে যেসব বিজেপি কর্মী এসেছেন তাদেরও ধন্যবাদ জানান সুকান্ত মজুমদার। 

বিজেপির নবান্ন অভিযান। প্রবল বৃষ্টি আর প্রাকৃতিক দুর্যোগের মধ্যেই আসতে জমায়েত শুরু করেছেন বিজেপি নেতা কর্মীরা।  পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রাখতে সতর্ক রয়েছে পুলিশ প্রশাসন। পুলিশ সূত্রের খবর নিরাপত্তা ব্যবস্থার নজরদারীতে রয়েছেন বিশেষ কমিশনার দময়ন্তী সেন। শহরজুড়ে রয়েছে কড়া নিরাপত্তা। বিজেপির নবান্ন অভিযানের নেতৃত্বে থাকবেন শুভেন্দু অধিকারী, দিলীপ ঘোষ, সুকান্ত মজুমদার। সুকান্ত মজুমদার গেরুয়া শিবিরের দায়িত্ব নেওয়ার পর এটাই সবথেকে বড় কর্মসূচি বিজেপির। অন্যদিকে বিজেপির নবান্ন অভিযান ঘিরে এদিন রাস্তায় যানজটের তীব্র আশঙ্কা রয়েছে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রাখতে বেশ কিছু রাস্তায় যান নিয়ন্ত্রণ করা হবে।  তার জন্য কলকাতা পুলিশ বিকল্প রাস্তার পরামর্শ দিয়েছে। হাওড়া ব্রিজ ও দ্বিতীয় হুগলি সেতু এড়িয়ে যাওয়ার পরামর্শ দিয়েছে কলকাতা পুলিশ। 
 

 

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios