কৌশিক সেন-

করোনা পরিস্থিতির মধ্যে অক্সিজেনের আকাল দেখা দিয়েছে রাজ্যের বিভিন্ন জায়গায়। অক্সিজেনের অভাবে প্রাণ হারাচ্ছেন অনেকেই। এই পরিস্থিতিতে এক নয়া উদ্যোগ নিয়েছে উত্তর দিনাজপুরের প্রধান শিক্ষক ও প্রধান শিক্ষিকাদের সংগঠন "অ্যাডভানসড সোসাইটি ফর হেড মাস্টার অ্যান্ড হেড মিসট্রেস"। করোনা আক্রান্তের পরিষেবা দিতে অক্সিজেন পার্লার চালু করল এই সংগঠন। এই অক্সিজেন পার্লারের ব্যাবস্থাপনায় রায়গঞ্জের "সাপোর্ট কোভিড কমিউনিটি"। রায়গঞ্জ শহরের ১৬ নম্বর ওয়ার্ডের দেশবন্ধু পাড়ায় দেশবন্ধু স্পোর্টিং ক্লাবে এই অক্সিজেন পার্লারের উদ্বোধন করা হয়। এই অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন রায়গঞ্জ পুরসভার চেয়ারম্যান সন্দীপ বিশ্বাস, পৌর পারিষদ সাধন বর্মণ, চিকিৎসক ডাঃ জয়ন্ত ভট্টাচার্য, চিকিৎসক ডাঃ নীলাঞ্জন মুখোপাধ্যায়-সহ আরও অনেকে।

করোনার দ্বিতীয় ঢেউ আছড়ে পড়ার পরই অক্সিজেনের ঘাটতি দেখা দেয় রাজ্যের বিভিন্ন জায়গায়। রোগীর তুলনায় অক্সিজেনের পরিমাণ কম থাকায় দেখা দিয়েছে সমস্যা। আর সেকথা মাথায় রেখেই সাহায্যের জন্য এগিয়ে এল "সাপোর্ট কোভিড কমিউনিটি"। মুক্তি নামে একটি স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন এবং প্রধান শিক্ষক ও প্রধান শিক্ষিকাদের সংগঠনের উদ্যোগে দেশবন্ধু স্পোর্টিং ক্লাব ঘরে এই অক্সিজেন পার্লার চালু করা হল। এ প্রসঙ্গে অ্যাডভানসড সোসাইটি ফর হেড মাস্টার অ্যান্ড হেড মিসট্রেসের সাধারণ সম্পাদক অজয় রায় বলেন, "উত্তর দিনাজপুর এই ধরনের তিনটি পার্লার খোলা হবে। তার মধ্যে প্রথমটি দেশবন্ধু স্পোর্টিং ক্লাবে খোলা হল। এরপর দ্বিতীয়টি মালঞ্চ উচ্চ বিদ্যালয় ও তৃতীয়টি হাতিয়া হাইস্কুলে শীঘ্রই খোলা হবে। বাতাস থেকে অক্সিজেন সংগ্রহ করে তা রোগীর দেহে সরবরাহ করবে এই যন্ত্র।"

করোনা রোগীদের হাসপাতালে ভর্তির আগে যদি কখনও অক্সিজেনের প্রয়োজন হয় তখন এই পার্লার থেকে অক্সিজেন নিয়ে যেতে পারবেন পরিবারের সদস্যরা। এছাড়া করোনামুক্ত হওয়ার পরও যদি কারও অক্সিজেনের প্রয়োজন হয় তাহলেও এই পার্লার থেকে অক্সিজেন পরিষেবা পাবেন তিনি। আর শহরে এই ধরনের একটা উদ্যোগকে স্বাগত জানিয়েছেন রায়গঞ্জবাসী।