রাজনীতি না ছাড়লে কয়েক মাসের মধ্যেই তাঁকে পৃথিবী থেকে সরিয়ে দেওয়া হবে। মাওবাদীদের নাম করে এমনই হুমকি চিঠি পেলেন দুই তৃণমূল নেতা।  তবে নামী কোনও নেতা নন।  পূর্ব মেদিনীপুরের এগরা থানার ১ নম্বর ব্লকের জুমকি গ্রাম পঞ্চায়েতের উপ প্রধান উদয় সর এবং ওই পঞ্চায়েতেরই সদস্য সরোজ সাউ নামে দুই তৃণমূল নেতা গত ১৫ জুন এমনই হুমকি চিঠি পেয়েছেন। 

চিঠি পাওয়ার পর থেকে একদিকে যেমন দুই নেতাই আতঙ্কিত, অন্যদিকে কিছুটা অবাকও। উদয় বাবুর জানিয়েছেন গোটা বিষয়টি তিনি জেলা সভাপতি শিশির অধিকারীকে জানিয়েছেন। অন্য দিকে সরোজবাবুর প্রশ্ন, বড় কোনও নেতাকে হুমকি না দিয়ে কেন তাঁর মতো ছোট কোনও নেতাকে নিশানা করবে মাওবাদীরা?

গত শনিবার সন্ধ্যায় ওই চিঠি দু'টি পান দুই তৃণমূল নেতা। লাল কালি দিয়ে লেখা চিঠিতে দু' জনকেই অবিলম্বে রাজনীতি ছাড়ার হুমকি দেওয়া হয়েছে। তা না হলে ছ' মাসের মধ্যে তাঁদের পৃথিবী থেকে সরিয়ে দেওয়ার হুমকিও দেওয়া হয়েছে চিঠিতে। পূর্ব ও পশ্চিম মেদিনীপুরের মাওবাদী সংগঠনের নামে ওই চিঠি এসেছে। কিষেণজির হত্যার বদলা নিতেই তাঁদের খুন হবে বলেও চিঠিতে দাবি করা হয়েছে। পাশাপাশি দুই তৃণমূল নেতার গতিবিধির উপরেও নজর রাখা হচ্ছে বলে জানানো হয়েছে চিঠিতে। 

ইতিমধ্যেই বিষয়টি পুলিশে জানিয়েছেন উদয় সর। কারা এই চিঠি পাঠিয়েছে, তা তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। তবে সত্যিই এই চিঠির পিছনে মাওবাদীরা রয়েছে, নাকি স্থানীয়ভাবে কেউ মাওবাদীদের নাম করে এই চিঠি পাঠিয়েছে, তা নিয়েও সংশয় রয়েছে তৃণমূল নেতা উদয় সরের। চিঠি পাওয়া অন্য নেতা সরোজ সাউ অবশ্য ভেবে পাচ্ছেন না, কারা তাঁকে এমন চিঠি পাঠাতে পারে। 

বাম আমলে এই কায়দাতেই জঙ্গলমহলের বহু নেতাকেই হুমকি চিঠি দিত মাওবাদীরা। অনেককে খুনও করা হয়েছে। ফলে চিঠি পাওয়ার পর থেকে দুই নেতার পরিবারই আতঙ্কিত। দুই নেতার নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে পুলিশও তাঁদের উপরে নজরদারি বাড়িয়েছে।