Asianet News BanglaAsianet News Bangla

রাজ্য জুড়ে তিন দিন ভারী বৃষ্টি, দেবীপক্ষের শুরুতেই দুর্যোগের সতর্কবার্তা

  • কলকাতা সহ দক্ষিণবঙ্গে তিন দিন টানা বৃষ্টি
  • ভারী বৃষ্টি উত্তর এবং  দক্ষিণের অনেক জেলায়
  • বৃষ্টির সঙ্গে হতে পারে ঝড়ও
     
Weather office predicts more rainfall in the nnext three days in Bengal
Author
Kolkata, First Published Sep 28, 2019, 4:59 PM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

বৃষ্টি তো কমছেই না। বরং দেবীপক্ষের শুরুতেই আরও খারাপ খবর শোনাল আলিপুর হাওয়া অফিস। হাওয়া অফিসের পূর্বাভাস অনুযায়ী, আগামী তিনদিন কলকাতা- সহ গোটা দক্ষিণবঘঙ্গে ঝড় বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। শুধু দক্ষিণে নয়, উত্তরের জেলাগুলিতেও বৃষ্টিপাতের আশঙ্কার কথা শুনিয়েছে হাওয়া অফিস। 

আলিপুর আবহাওয়া দফতর জানিয়েছে, দক্ষিণ উত্তর প্রদেশ এবং উত্তর মধ্যপ্রদেশ সংলগ্ন এলাকায় একটি ঘূর্ণাবর্ত আছে,যেটা গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গের উপর পর্যন্ত বিস্তৃত। এর ফলে আগামী তিনদিন কলকাতা-সহ দক্ষিণবঙ্গে ঝড়বৃষ্টির সম্ভাবনা তৈরি হয়েছে। তবে শনি এবং রবিবার দক্ষিণ এবং উত্তরবঙ্গের একাধিক জেলায় ভারী বৃষ্টির সতর্কতা জারি করেছে হাওয়া অফিস। 

 হাওয়া অফিসের পূর্বাভাস অনুযায়ী,  দক্ষিণবঙ্গের দুই বর্ধমান,পশ্চিম মেদিনীপুর, বাঁকুড়া,পুরুলিয়া,ঝাড়গ্রাম, হুগলি, নদিয়া, এবং উত্তর চব্বিশ পরগণাতে শনিবার ভারী বৃষ্টির সতর্কতা জারি করা হয়েছে। পশ্চিমের জেলাগুলিতে  তুলনামূলকভাবে বেশি বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। মুর্শিদাবাদ এবং বীরভূমের কয়েক জায়গায় অতি ভারী বৃষ্টির সতর্কতা জারি হয়েছে। 

অন্যদিকে উত্তরের মালদহ এবং দুই দিনাজপুরেও আগামী তিনদিনের জন্য ভারী থেকে অতি ভারী বৃষ্টির সতর্কতা জারি করা হয়েছে। রবিবার উত্তরের আলিপুরদুয়ার, কোচবিহার, জলপাইগুড়ি এবং দক্ষিণের মুর্শিদাবাদ এবং বীরভূমের কয়েক জায়গাতেও ভারী থেকে অতি ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। একইভাবে রবিবার উত্তর চব্বিশ পরগণা, দুই বর্ধমান, হুগলি, নদিয়া এবং উত্তরবঙ্গের দার্জিলং ও কালিম্পং জেলায় ভারী বৃষ্টি হতে পারে। 

হাওয়া অফিসের পূর্বাভাস অনুযায়ী আগামী বাহাত্তর ঘণ্টা এই দুর্যোগ চলবে। তবে সোমবার মালদহ, দুই দিনাজপুর এবং দক্ষিণের মুর্শিদাবাদ ও বীরভূম জেলা বাদ দিয়ে গোটা রাজ্যেই বৃষ্টির পরিমাণ অনেকটাই কমবে। আবহাওয়ার কারণে যে পুজোর শেষ মুহূর্তের প্রস্তুতিতে বড়সড় ধাক্কা লাগতে চলেছে, তা বলার অপেক্ষা রাখে না। একই সঙ্গে পুজোর আগে শেষ রবিবারে এমন দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়া পুজোর বাজারও মাটি করে দিতে পারে বলেই আশঙ্কা করছেন ব্যবসায়ীরা। 
 

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios