'মুখ্যমন্ত্রী ট্রেডমিলে হাঁটতে হাঁটতে বাজেট বানান', মুখ্যমন্ত্রীকে আক্রমণ দিলীপ ঘোষের

| Feb 02 2023, 06:57 PM IST

Dilip Ghosh

সংক্ষিপ্ত

নিজের অফিসিয়াল ফেসবুক অ্যাকাউন্ট থেকে একটি ভিডিও শেয়ার করেছেন দিলীপ ঘোষ সেখানেই রাজ্য সরকারকে তীব্র কটাক্ষ করেন তিনি। প্রসঙ্গত, বৃহস্পতিবারও বর্ধমানের সভা থেকে বাজেট নিয়ে ফের কেন্দ্রকে তোপ দাগেন মুখ্যমন্ত্রী।

কেন্দ্রের বাজেট ইস্যুতে একের পর এক বিস্ফোরক মন্তব্য মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের। সংসদে বাজেট অধিবেশন শেষের পর থেকেই ২০২৩-২৪ সালের বাজেট নিয়ে অসন্তোষ প্রকাশ করেছেন তিনি। এবার মুখ্যমন্ত্রীর মন্তব্য নিয়ে মুখ খুললেন বিজেপির সর্ব ভারতীয় সহ সভাপতি দিলীপ ঘোষ। ফেসবুকে মুখ্যমন্ত্রীকে তীব্র আক্রমণ করলেন তিনি। নিজের অফিসিয়াল ফেসবুক অ্যাকাউন্ট থেকে একটি ভিডিও শেয়ার করেছেন দিলীপ ঘোষ সেখানেই রাজ্য সরকারকে তীব্র কটাক্ষ করেন তিনি। প্রসঙ্গত, বৃহস্পতিবারও বর্ধমানের সভা থেকে বাজেট নিয়ে ফের কেন্দ্রকে তোপ দাগেন মুখ্যমন্ত্রী। কেন্দ্রীয় বাজেটকে 'কথার জাগলারি' বলেও কটাক্ষ করেন তিনি।

মুখ্যমন্ত্রী তথা রাজ্য সরকারকে তোপ দেগে বিজেপির সর্ব ভারতীয় সহ সভাপতি দিলীপ ঘোষ দিলীপ ঘোষ বলেছেন,'বাজেটের জন্য তো টাকা থাকতে হয়, রাজ্যের তো টাকাই নেই।' প্রসঙ্গত বাজেটের পর থেকেই একের পর এক ইস্যুতে মোদী সরকারকে বিঁধেছেন মুখ্যমন্ত্রী।

Subscribe to get breaking news alerts

কী বললেন দিলীপ ঘোষ?

নিজের ফেসবুক অ্যাকাউন্টে মুখ্যমন্ত্রীকে নিশানা করে দিলীপ বলেছেন,'মুখ্যমন্ত্রী ট্রেডমিলে হাঁটতে হাঁটতে বাজেট বানান। তাই আজ রাজ্যের এই আর্থিক দুরবস্থা। বাজেট করার জন্য টাকা দরকার হয়। রাজ্যের তো টাকাই নেই। সারাদিন টাকা নেই বলে কান্নাকাটি করছেন মুখ্যমন্ত্রী। আর বাজেট করবেন কি, তাঁর দলের লোকেরাই সব লুটেপুটে খেয়ে নিচ্ছে।'

প্রসঙ্গত, বৃহস্পতিবারই পূর্ব বর্ধমানের সভামঞ্চে দাঁড়িয়ে মোদী সরকারের বাজেটকে 'মাছের তেলে মাছ ভাজা হয়েছে' বলে কটাক্ষ করেন। এদিন তিনি বললেন,'ভাবছেন দারুণ মজা হয়েছে, দারুণ কিছু হল। শুনে রাখুন কী বোকা বানিয়েছে। মাছের তেলে মাছ ভেজেছে। ওটা আসলে কথার জাগলারি। ভাবছে চালাকি দিয়ে সব হয়। আরে কেউ না কেউ তো ধরবে।' এখানেই শেষ নয়, বাজেটে নয়া কর কাঠামোকে বিঁধলেন মুখ্যমন্ত্রী। এই কর কাঠামোয় সরকার যা না দিচ্ছে আদতে তার থেকে বেশি কেটে নিচ্ছে বলেও দাবি করেন মমতা। এই মর্মে তথ্যও তুলে ধরেন তিনি। মুখ্যমন্ত্রীর কথায়,'খুব আনন্দে আছেন পাঁচ থেকে সাত করল। আসলে দুই বাড়াল, আড়াই কমাল। বিজেপি আপনার রোজগার আরও ঝড়ঝড়ে করে দিয়েছে। যারা আয়কর ৮০ সি ধারায় এলআইসি, পিপিএফ বা ট্যাক্স সেভিং মিউচুয়াল ফাণ্ড মিলিয়ে যে দেড় লাখ টাকা ছাড় পেতেন, নতুন কড় কাঠামোয় আর পাবেন না।' শুধু তাই নয় মেডিক্যাল ইনসিওরেন্সর প্রিমিয়ামে পুরো পরিবারের জন্য ৮০ ডি ধারায় যে ৫০ হাজার টাকা ছাড় পাওয়া যেত সেই ছাড়ও আর মিলবে না বলে দাবি মুখ্যমন্ত্রীর। এই তথ্য উল্লেখ করে মুখ্যমন্ত্রী বলেন,'অর্থাৎ ছাড় কমল দেড় আর ৫০ হাজার মানে দু'লাখ। ন্যাশানাল পেনশন স্কিমে টাকা জমালে যে ছাড় মিলত তাও তার পাবেন না। অর্থাৎ ছাড় কমল আড়াই। লাভ হল না লোকশান হল আপনিই বলুন।'