কাউন্টডাউন শুরু। টলিমহলের অন্দরে কান পাতলেই একাধিক বিয়ের গুঞ্জন শোনা যাচ্ছে।  ২০২১ সালে অর্থাৎ আগামী বছরেই বহু প্রতীক্ষিত বিয়ের আসর বসতে চলেছে। সেই তালিকায় রয়েছে টলিপাড়ার জনপ্রিয় কাপল নীল ও তৃণা। ইতিমধ্যেই শুরু হয়ে গিয়েছে বিয়ের শপিং। কয়েক মাসের মধ্যেই বদলে যাবে নীল-তৃণার ব্যাচেলর জীবন। আর নতুন জীবনে পা দেওয়ার আগে ব্যাচেলর জীবনটা পুরোপুরি উপভোগ করতে চান বর -কনে দুজনেই। ইতিমধ্যেই বন্ধুদের নিয়ে ব্যাচেলরেট পার্টিতে মত্ত নীল। তৃণাও কম কীসে।

 

 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 

A post shared by Trina Saha (@trinasaha21)

 

মিসেস তৃণা সাহা হওয়ার আগে গার্লস গ্যাং-এর সঙ্গে ব্যাচেলরেট পার্টিতে মত্ত ব্রাইড টু বি। গত শনিবার গভীর রাত থেকে সোমবার প্রায় ভোর রাত পর্যন্ত চলেছে এক টানা পার্টি। টলিপাড়ার 'ব্রাইড টু বি' চুটিয়ে উপভোগ করছেন ব্যাচেলরেট পার্টির আনন্দ। গত শনিবার শুট শেষ করার পরই ক্লাব হপিং দিয়ে শুরু হয়েছিল ব্যাচেলর পার্টি। সম্প্রতি সেই  ছবিও নিজের ইনস্টা-তে শেয়ার করছেন তৃণা সাহা।

 

 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 

A post shared by Trina Saha (@trinasaha21)

 

ব্যাচেলরেট পার্টিতে কী কী করলেন তৃণা সাহা। সংবাদমাধ্যম সূত্রে জানা গিয়েছে। রবিবার সকালে স্বভূমিতে পৌঁছে ব্রেকফাস্ট সারেন গার্লস গ্যাং। কোনও কিছুরই খামতি রাখেননি অভিনেত্রী।  তৃণা জানিয়েছেন, বান্ধবীরা পুরো রিসর্টটাই বুক করে রেখেছিলেন, যাতে অন্য কেউ না থাকে। পুল পার্টিতে লাইভ মিউজিক, প্রতিটি মুহূর্তকেই স্পেশ্যাল করে রেখেছিলেন তৃণার গার্লস গ্যাং।

 

 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 

A post shared by Trina Saha (@trinasaha21)

 

আড্ডা, খাওয়াদাওয়া, সেলফি, কেক কাটিং, সব মিলিয়ে আলিশান ভাবে সাজানো ছিল ব্রাইড টু বি-র ব্যাচেলর থিম। তৃণার মতে, এটা কেবল ব্যাচেলরেট পার্টি নয়, এটা সারপ্রাইজ ব্যাচেলরেট পার্টি। ছোটবেলার স্বপ্নই পূরণ হল তৃণার, জানিয়েছেন অভিনেত্রী নিজেই। 

 

 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 

A post shared by Trina Saha (@trinasaha21)

টলিপাড়ার যেন বিয়ের মরশুম। সর্বভারতীয় এক সাক্ষাৎকারে নিজেদের বিয়ের কথা স্বীকার করে নিয়েছেন টলিপাড়ার এই লাভবার্ডস। কোনও লুকোছুপি নয় বরং সকলকে জানিয়েই আগামী বছরের ফ্রেব্রুয়ারি মাসেই বসতে বলেছে বিয়ের আসর।ঠিক হয়ে গিয়েছে বিয়ের তারিখ থেকে ওয়েডিং ডেস্টিনেশন। ২০২১ সালের ফেব্রুয়ারি মাসের ৪ তারিখ জমকালে বিবাহ আসর বসছে  সিটি ক্লাবে। তবে ভালবাসার দিন অর্থাৎ ১৪ ফেব্রুয়ারি হবে গ্র্যান্ড রিসেপশন। ইতিমধ্যেই হানিমুন ডেস্টিনেশনও পাকা হয়ে গিয়েছে। গ্রীসেই মধুচন্দ্রিমায় যাবেন এই জুটি।