মধুমিতা সরকারের পোশাক আশাক ফ্যাশন সেন্সে সর্বদা নজর মহিলা ভক্ত থেকে শুরু করে পুরুষ ভক্তদের। এবারে ক্যামেরার সমানেই পোশাক বদল ঘটিয়ে চমকে দিলেন মধুমিতা। স্লো মোশনে চলছে ভিডিও। সেখানেই নানা পোশাকে ধরা দিলেন তিনি। ট্রনজিশন ভিডিওটিতে কখনও লং স্কার্ট, কখনও হটপ্যান্ট, আবার কখনও ড্রেসে দেখা গেল তাঁকে। মধুমিতার এই ধরণের ছবি ভিডিও নিয়ে সর্বদা উত্তেজিত থাকে ভক্তরা। এখন অবশ্য মধুমিতার ছবির পাশাপাশি তাঁর ছবি নিয়েও ভক্তদের উন্মাদনা তুঙ্গে। 

গত বছর বড়দিনে মুক্তি পেয়েছে 'চিনি'। মা ও মেয়ের মিষ্টি সম্পর্ক নিয়ে গল্প বুনেছেন পরিচালক মৈনাক ভৌমিক। মায়ের চরিত্রে অভিনয় করেছেন অপরাজিতা আঢ্য এবং মেয়ের চরিত্রে মধুমিতা সরকার। মা ও মেয়ের এক ভিন্ন সম্পর্কের বাঁধনেই তৈরি হয়েছে চিনি। কখনও মা কুল মিলেনিয়াল তো কখনও আবার একবারে ঘরোয়া মহিলা। চিনি নিজের মা-কেই হঠাৎ চিনতে পারেনি এক সময়। এই চেনা অচেনা মায়ের মধ্যেই লুকিয়ে ছিল চাপা দুঃখ। গার্হস্থ্য হিংসাকে কেন্দ্র করে মা মেয়ের অটুট সম্পর্ক। 

আরও পড়ুনঃউদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উন্মুক্ত উরু নিয়ে বসে ঋতাভরী, শর্ট ড্রেসের জেরে 'সভ্যতা'র জ্ঞান পেলেন অভিনেত্রীকে

মা-মেয়ের এই নিখাদ ভালবাসার মধ্যে বন্ধুত্বটাই তো আসল। পরতে পরতে খুলেছে সেই ভালবাসার গল্প। চিনি নিয়ে এখনও উন্মাদনা তুঙ্গে। মা অপরাজিতার চরিত্রে এক অদ্ভুত ডুয়্যালটি দেখে অবাক মেয়ে মধুমিতা। যে মা নাকি মেয়েকে বাইরের জামায় ঠাকুরঘরে ঢঝুকতে দিত না, সেই ছাপোষা বাঙালি মা কি না টাইগার শ্রফকে চোখ বড় বড় করে বলছে, 'টাইগার শ্রফ তো হট। যে কেউ বলবে টাইগার শ্রফ ভীষণই হট।' অন্যদিকে মধুমিতার প্রেমিকের চরিত্রে ছিলেন সৌরভ দাস।