বলিউড অভিনেত্রী করিনা কাপুর খান এবং  বিবেক ওবেরয় 'যুবা' ছবিতে প্রথম  স্ক্রিন শেয়ার করেছিলেন দুই তারকা। সেখান থেকেই বন্ধুত্বের শুরু। সেই বন্ধুত্ব নাকি বিয়ের কথা পর্যন্ত এগিয়েছিল। সম্প্রতি সূত্র থেকে তেমনটাই জানা গেছে। টিনসেল টাউনে তাদের বন্ধুত্ব নিয়ে মোটেই সরগরম নয়, কিন্তু তাদের ভিতরকার বন্ধুত্ব নাকি বেশ গভীর তেমনটাই জানা গেছে।

আরও পড়ুন-বেবো-লোলো কে চেনেন, যুবতী বয়সের ছবিতে নজর কাড়লেন নেটিজেনদের...


সদ্যই ঐশ্বর্যর সঙ্গে ব্রেক আপ হয়েছে বিবেক ওবেরয়ের। 'যুবা' ছবিতে শুটিং করতে গিয়েই বন্ধুত্ব এতটাই বেড়ে গিয়েছিল যে বিবেকের বিয়ে দিতে উঠে পড়ে লেগেছিলেন করিনা কাপুর। একটানা সময় কাটাতে গিয়ে অনেকটাই গভীর বন্ধুত্ব তৈরি হয়েছিল দুজনের মধ্যে।  আর তখনই নাকি বারবার বিয়ের জন্য জোর করতেন বিবেককে। করিনা সবসময়েই বলতেন, 'একটা ভাল মেয়ে দেখে বিয়ে করে নাও,তারপর সংসারী হয়ে যাও।'

আরও পড়ুন-প্রকৃতির কোলে যোগাসনে মত্ত মোনালি, ভাইরাল শরীরচর্চার ভিডিও...

বিবেক সাক্ষাৎকারে একবার জানিয়েছিলেন, 'বিয়ের কথা একবার নয়, বরং সারাদিনে বারবার বলত বেবো। এমনকী ডিনার ডেটেও একাধিকবার বিয়ে প্রস্তাব দিত ও আমাকে।' এখানেই শেষ নয়, সাংবাদিক সন্মেলনও বিস্ফোরক মন্তব্য করে সোশ্যাল মিডিয়ায় শোরগোল ফেলে দিয়েছিলেন বিবেক। সলমনকে নিয়ে তার সমস্যার কথা সকলেরই জানা, সলমনকে নিয়েই বিবেক বলেছিল, ঐশ্বর্য, রানি, দিয়া সকলের সঙ্গে শারীরিক সম্পর্ক ছিল সলমনের। এই মন্তব্য করার পর থেকেই সোশ্যাল মিডিয়ায় জোর শোরগোল শুরু হয়ে গিয়েছিল।