বহু কাঠখড় পুড়িয়ে অবশেষে আজ মুক্তি পেল প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর বায়োপিক 'পিএম নরেন্দ্র মোদী'। ছবিতে মোদীর ভূমিকা অভিনয় করেছেন বিবেক ওবেরয়। 

ছবি মুক্তির ঠিক আগে চা বিক্রি করলেন বিবেক ওবেরয়। উপস্থিত লোকজনকে  কেটলি থেকে মাটির ভাঁড়ে আর কাচের গ্লাসে করে চা খাওয়ালেন অভিনেতা। 

সুরেশ ওবেরয় ও সন্দীপ সিং প্রযোজিত এই ছবিতে বিবেক শুধু অভিনয়ই করেননি। সঙ্গে তিনি কো-রাইটার হিসেবে কাজও করেছেন। 

ছবির প্রথম লুক প্রকাশ পেয়েছিল এবছরের ৭ জানুয়ারি। ৯ এপ্রিল এই ছবি সেনসর বোর্ডের ছাড়পত্র পায়। ছবিটি নির্বাচন চলাকালীনই মুক্তি পাওয়ার কথা ছিল। কিন্তু বিজেপি বিরোধীরা দাবি করে, এই ছবি নির্বাচনের সময়ে মুক্তি পেলে তা নির্বাচনী বিধি লঙ্ঘন করবে। তাই সেই সময়ে নির্বাচন কমিশনের নির্দেশে তখন ছবি মুক্তি আটকে যায়। বলা হয় নির্বাচন পুরোপুরি শেষ হলেই ছবিটি মুক্তি পাবে। গত কাল বিরাট জয় হয়েছে মোদী বাহিনীর। তাই ফল প্রকাশের পরের দিনই মুক্তি পাচ্ছে বায়োপিক 'পিএম নরেন্দ্র মোদী'।

 সম্প্রতি ছবির আরও একটি পোস্টার বেরোয়। সেই পোস্টারে লেখা, আ রহে হ্যায় দোবারা, অব কোই নেহি রোক সকতা। ছবিটি মোট ২৩টি ভাষায় মুক্তি পাচ্ছে। পিএম নরেন্দ্র মোদী বায়োপিকে দেখানো হবে একজন রাজনীতিক হয়ে উঠতে মোদী কতটা  স্ট্রাগল করেছেন। নরেন্দ্র মোদীর সঙ্গে দেখা যাবে অমিত শাহকেও। বিজেপি সভাপতির  চরিত্রে দেখা যাবে মনোজ যোশীকে। 

মোদীর চরিত্রে প্রথমে পরেশ রাওয়ালের অভিনয় করার কথা ছিল। তাঁর প্রযোজনাতেই ছবিটি হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু তার পরে বিবেক ওবেরয়কেই বেছে নেওয়া হয়। এই ছবির শ্যুটিং হয়েছে আহমেদাবাদ ও উত্তরকাশীতে। ছবির বেশ কিছু অংশ শ্যুটিং হয়েছে মুম্বইতেও। উত্তরকাশীতে একটি দৃশ্যে অভিনয় করার সময়ে চোট পেয়েছিলেন বিবেক। 

ছবির সঙ্গীত পরিচালনা করেছেন এআর রহমান, হিতেশ মোদক ও শশী খুশি। গীতিকার জাভেদ আখতার। যদিও জাভেদ আখতার পোস্টারে নিজের নাম দেখে অবাক হয়েছিলেন। কারণ তিনি এই ছবিতে সরাসরি ভাবে কোনও কাজ করেননি। পরে জানা যায়, ছবিতে পুরনো ছবির গান ব্যবহৃত হয়েছে, যা জাভেদ আখতারের লেখা। 

গতকাল সারা দেশে গেরুয়া ঝড় হয়েছে। ঠিক তার পরের দিনই মোদীর বায়োপিক মুক্তি পেল। তবে ছবি হিসেবে বক্স অফিসে এটি কেমন সাড়া ফেলবে তাই এখন দেখার।