পত্রলেখা বসু চন্দ্র, বর্ধমান-লক্ষ্য একুশের বিধানসভা নির্বাচন। তৃণমূল সরকারকে কোণঠাসা করতে জেলায় জেলায় দাপিয়ে বেড়াচ্ছেন নেতা-নেত্রীরা। সোমবার বর্ধমানে গেলেন রাজ্য বিজেপির মহিলা মোর্চার সভাপতি অগ্নিমিত্রা পাল। সেখানে রাজ্য সরকারের বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগ তুলে সরব হলেন বিজেপি নেত্রী। ফের তাঁর নিশানায় মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্য়ায়।

আরও পড়ুন-ফের তৃণমূলের গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব প্রকাশ্যে, দলীয় বিধায়কের বিরুদ্ধে তৃণমূল নেতার বিতর্কিত মন্তব্য ভাইরাল

শাসকদলকে নিশানা করে অগ্নিমিত্রা পাল বলেন, ''এই সরকার চাল চুরি করে, ত্রিপল চুরি করে, আমফানের টাকা চুরি করে, প্রধানমন্ত্রী আবাস যোজনায় ঘর চুরি করে''। মন্তব্য অগ্নিমিত্রা পালের। পাশাপাশি, রাজ্যে নারী নির্যাতন নিয়েও রাজ্যের আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ে পুলিশের ভূমিকার কড়া সমালোচনা করেন তিনি। তিনি বলেন, '' ক্ষমতায় থেকে ওঁরা মনে করছে মহিলাদের গায়ে হাত দেওয়া ওদের অধিকার হয়ে গেছে। আমি কথা দিচ্ছি কারোর গায়ে হাত গুঁড়িয়ে দেব। সত্যি কারের সোনার বাংলা বলতে যা বোঝায়, তা গড়বে বিজেপি''। মন্তব্য অগ্নিমিত্রা পালের।

আরও পড়ুন-জঙ্গল লাগোয়া গ্রামে পূর্ণবয়স্ক হাতির দেহ উদ্ধার ঘিরে রহস্য, মেদিনীপুরে আতঙ্ক

রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্তে বিজেপি কর্মীদের উপর হামলার অভিযোগ উঠেছে। তা নিয়ে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্য়োপাধ্য়ায়ের বিরুদ্ধে সরব হন অগ্নিমিত্রা। তিনি বলেন, '' আপনি যতবেশি বিজেপির উপর অত্য়াচার করবেন, মানুষ ততবেশি আমাদের দিকে এগিয়ে আসবে। আপনি বেশি করে আমাদের উপর অত্যাচার করুন, তাহলে আপনাকেও সিংহাসন থেকে নামিয়ে কালীঘাটে পাঠিয়ে দেব''। 

এদিন বর্ধমানের সর্বমঙ্গলা মন্দিরে পুজো দেন অগ্নিমিত্রা পাল। তারপর দলীয় কর্মীদের সঙ্গে বৈঠকে যোগ দেন তিনি। এছাড়াও মেমারিতে বিজেপির একটি যোগদান কর্মসূচিতেও উপস্থিত ছিলেন বিজেপির মহিলা মোর্চার সভাপতি।