Asianet News Bangla

কাটোয়ায় বাড়ির কাছেই খুন তৃণমূল ঘনিষ্ঠ প্রোমোটার, অভিযুক্ত বিজেপি কর্মী

  • কাটোয়ায় বাড়ির কাছেই গুলি করে প্রোমোটার-কে হত্যা
  • নিহত প্রোমোটার তৃণমূল কংগ্রেস করতেন
  • নিহতের বিরুদ্ধেও রয়েছে একাধিক মামলা
  • ঘটনায় বিজেপি কর্মীর দিকে অভিযোগের আঙুল তুলেছে নিহতের পরিবার
     
TMC backed promoter killed in Katwa
Author
Kolkata, First Published Feb 5, 2020, 10:14 AM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

ভর সন্ধ্যায় বর্ধমানের কাটোয়ায় মাথায় গুলি করে খুন করা হলো এক প্রোমোটারকে। মৃতের নাম রথীন বিশ্বাস (৩০)। পরিবারের দাবি, মঙ্গলবার সন্ধ্যায় একটি ফোন পেয়ে বাড়ি থেকে বেরিয়েছিলেন রথীন। এর কিছুক্ষণ পরেই বাড়ির কাছেই ওই যুবকের মৃতদেহ উদ্ধার হয়। ঘটনার তদন্তে নেমেথে কাটোয়া থানার পুলিশ। 

যদিও, নিহত যুবকের নামেও পুলিশের খাতায় একাধিক অভিযোগ ছিল বলেই জানা গিয়েছে। রথীন বিশ্বাস নামে ওই প্রোমোটার তৃণমূল কংগ্রেস করতেন বলেই তাঁর পরিবারের দাবি। থানায় তাঁর বিরুদ্ধে একাধিক মামলা রয়েছে। বেশ কয়েকবার সে গ্রেফতার হয়েছে বলে জানা গিয়েছে। বছর দু' য়েক আগে একবার রথীনকে খুন করার চেষ্টা হয়েছিল বলে অভিযোগ। সে যাত্রায় পায়ে গুলি লাগায় বেঁচে গিয়েছিল সে। কিন্তু এবার আর শেষ রক্ষা হলো না। 

আরও পড়ুন- বাড়িতে ঢুকে নাবালিকা প্রেমিকাকে খুন করে আত্মঘাতী প্রেমিক, দুর্গাপুরে চাঞ্চল্য

রথীনের বাবা রঞ্জিত বিশ্বাস জানিয়েছেন, মঙ্গলবার সন্ধে সাতটা নাগাদ একটি ফোন পেয়ে বাড়ি থেকে বেরিয়ে গিয়েছিল রথীন। একজনের থেকে পাওনা টাকা নিতেই সে বেরিয়েছিল বলে পরিবারের দাবি। এর ঘণ্টা দেড়েক বাদে বাড়ি থেকে দুশো মিটারের মধ্যে কাটোয়া বিজ্ঞান পরিষদের সামনে ওই যুবকের মৃতদেহ উদ্ধার হয়। খুনের পর যুবকের মুখ থেঁতলে দেওয়া হয়েছিল। পুলিশের অনুমান গুলি করেই ওই যুবককে খুন করা হয়েছে। 

স্থানীয় বাসিন্দারাই যুবকের মৃতদেহ পড়ে থাকতে দেখে পুলিশকে খবর দেয়। খুনের পিছনে ব্যবসায়িক শত্রুতা নাকি অন্য কোনও কারণ রয়েছে, তা জানার চেষ্টা করছে পুলিশ। পাওনা টাকার টোপ দিয়ে ডেকে এনে ওই যুবককে খুন করা হয়েছে কি না, তাও জানার চেষ্টা চলছে। নিহতের বাবা অবশ্য জানিয়েছেন, কার্তিক পুজোর সময় রথীনের সঙ্গে একজনের গন্ডগোল হয়েছিল। পাপ্পু মণ্ডল নামে এক বিজেপি কর্মীর বিরুদ্ধে খুনের অভিযোগ এনেছেন নিহতের বাবা।  যদিও বিজেপি-র দাবি, প্রোমোটিং সংক্রান্ত বিবাদেই খুন হয়েছেন রখীন। এর সঙ্গে বিজেপি-র কোনও যোগ নেই। 

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios