বর্তমানে করোনা পরিস্থিতিতে মানুষের পাশে সাধ্যমত এগিয়ে আসছেন সকলেই। সেলেব মহল থেকে শুরু করে সাধারণ মানুষ, রাজনীতিবিদ থেকে পুলিশ প্রশাসন আর সবার ওপরে ডাক্তার। নিজ নিজ সুবিধে অসুবিধে ভুলে, কীভাবে একযোগে সকলে মিলে সুস্থ হয়ে ওঠা যায় সেই মন্ত্রেই ব্রত। সেলেব মহলরা করোনার দ্বিতীয় ঢেউতে একটু বেশি তৎপর। সোশ্যাল মিডিয়ায় সাহায্যের আর্জি পোস্ট করা থেকে শুরু করে ফান্ড তৈরি করা, খাবারের সাহায্য করা, সবই করছেন সাধ্যমত। 

আরও পড়ুন- একাধিক সাহসী পোজ, শরীরি গরণে ভাইরাল গ্ল্যামার কুইন রাইমা, ৪০ পেরিয়েও রাতের ঘুম কারছেন রইমা, কীভাবে 

তবে সেই তালিকাতে বেশ কিছু নামের খোঁজ ছিল সকলের প্রথম থেকেই। যার মধ্যে অন্যতম হলেন নুসরত জাহান। অনেকেই প্রশ্ন করতেন, তিনি ঠিক কী কী পদক্ষেপ নিয়েছেন বসিরহাটের মানুষের জন্য। এবার সেই প্রশ্নেরই সপাট উত্তর দিলেন নুসরত। সেখানে তৈরি করলেন একটি সেফ হোম। যাঁদের মধ্যে করোনার বিন্দুমাত্র উপসর্গ দেখা যাচ্ছে, তাঁরা এই সেফ হোমে থাকতে পারবেন সম্পূর্ণ বিন্যামূল্যে। এখানেই শেষ নয়। রয়েছে কমিউনিটি কিচেনের ব্যবস্থাও।

অনেকেই বাড়িতে করোনা চিকিৎসা করছেন, কিন্তু সঠিকভাবে খাবার পাচ্ছেন না তাঁরা। তারওপর চলছে লকডাউন। এই পরিস্থিতিতে মানুষের মুখে খাবার তুলে দিতেই এই উদ্যোগ নুসরতের। সোশ্যাল মিডিয়ায় এই খবর শেয়ার করলেন তিনি। বসিরহাটের ভ্যাবলা পলিটেকনিক কলেজে এই সেফ হোম তৈরি করা হয়েছে। সোশ্যাল মিডিয়ায় এই খবর শেয়ার হতেই সকলেই প্রশংসা করে বাহবা জানান নুসরতকে।