আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের বর্তমানে অন্যতম ধ্বংসাত্বক ব্যাটসম্যান ভারতীয় ওয়ান ডে দলের সহ অধিনায়ক রোহিত শর্মা। তার বিধ্বংসী ব্যাটিংয়ের জন্য তার নাম দেওয়া হয়েছে হিটম্যান। বিশেষ করে সাদা বলের ক্রিকেটে তার দিকে বল হাতে ধেয়ে আসতে ভয় পান বিশ্বের তাবড় তাবড় বোলার। ওকদিনের ক্রিকেটে একটি নয়, দুটি নয়, তিন-তিনটি ডাবল সেঞ্চুরির মালিক রোহিত। এখনও পর্যন্ত এই নজির নেই অন্য কোনও ব্যাটসম্যানের। তার শেষ দ্বিশতরানটি করেছিলেন ২০১৭ সালের ১৩ ডিসেম্বর মোহালিতে শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে। সেই ম্যাচেরই একটি অজানা গল্প শিখর ধওয়ান ও অজিঙ্কে মায়াঙ্ক আগরওয়ালের সঙ্গে লাইভ চ্যাটে আড্ডা দেওয়ার সময় তুলে ধরলেন রোহিত শর্মা।

আরও পড়ুনঃসমস্যা সত্ত্বেও প্লেয়ার ও কর্মীদের বেতন কাটতে নারাজ সৌরভ,অন্য খাতে খরচ কমাচ্ছে বিসিসিআই

শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে সই ম্য়াচে ১৫৩ বলে ২০৮ রান করেছিলেন রোহিত শর্মা। মেরেছিলেন ১৩টি চার ও ১২টি ছয়।  স্ট্রাইকরেট ছিল ১৩৫.৯৪। রোহিতের ব্যাটিংয়ের সৌজন্যে প্রথমে ব্যাট করে ৩৯২ রান করে ভারত। জবাবে রান তাড়া করতে নেমে ২৫১ রানেই শেষ হয়ে যা দ্বীপরাষ্ট্রের ইনিংস। সেই ইনিংস নিয়ে শিখর ধওয়ান ও মায়াঙ্ক আগরওয়ালের সঙ্গে আড্ডা দিতে গিয়ে রোহিত শর্মা বলেছেন,'আমি যখন দুশোয় পৌঁছলাম তখন আমার স্ত্রী রীতিকা আবেগপ্রবণ হয়ে পড়েছিল। ওর চোখে জল এসে গিয়েছিল। আমার বিবাহবার্ষিকীর দিন ছিল সেটা। সেই কারণে এটা স্পেশাল ইনিংস। এর চেয়ে ভাল উপহার দেওয়া সম্ভব ছিল না ওকে। ১৯৬ রানে আমি যখন ড্রাইভ দিয়েছিলাম তখন ও ভয় পেয়ে কেঁদেই ফেলেছিল। ভেবেছিল আমার হাত হয়তো মচকে গিয়েছে। চোখে জল কেন এসেছিল, পরে জিজ্ঞাসাও করেছিলাম। জানিয়েছিল, আমার চোট পাওয়ার আশঙ্কাই কাঁদার কারণ।'

 

 

আরও পড়ুনঃকরোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হল প্রাক্তন মোহনবাগান প্লেয়ারের

আরও পড়ুনঃগুরুতর নয় মেসির চোট, চেষ্টা চলছে প্রথম ম্যাচেই খেলানোর

বিবাহ বার্ষিকীর দিন রীতিকাকে দেওয়া রোহিতের সের উপহারের মুহূর্ত ভুলতে পারেনি ১৩০ কোটির দেশ। মনে রেখেছে গোটা ক্রিকেট বিশ্বও। ডবল সেঞ্চুরির পর স্ত্রীর উদ্দেশ্যে ফ্লাইং কিস ছুড়েছিলেন হিটম্যান। স্টেডিয়ামে দাঁড়িয়ে রোহিত মুখে হাসি ও চোখে জল নিয়ে অভিনন্দন জানিয়েছিলেন রীতিকা। সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়ে সেই দৃশ্য। হয় ভাইরালও। ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের তরফ থেকেও শেয়ার করা হয় সেই ভিডিও। যা এখনও স্মৃ-তির মণিকোঠায় রয়েছে রোহিত-রীতিকা ও বিশ্বজুড়ে রোহিত শর্মার ভক্তদের।