করোনা মোকাবিলায় কেন্দ্র তথা রাজ্য সরকারগুলির ত্রাণ তহবিলে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে এগিয়ে আসছেন সমাজের বিভিন্ন ক্ষেত্রের বিশিষ্টরা। লড়াইতে সামনে থেকে নেতৃত্ব দিচ্ছেন দেশের ক্রীড়া ব্যক্তিত্বরা। অনুদানের পাশাপাশি অহরহ সামাজিক সচেতনতার বার্তা দিচ্ছেন ক্রীড়াবিদরা।  এবার করোনা যুদ্ধে সামিল হল আরও দুই ভারতীয় ক্রিকেটার। কজন যুবরাজ সিং,অপরজন হরভজন সিং। ৫০ লক্ষ টাকার অনুদান দিলেন যুবরাজ সিং ও প্রতিদিন পাঁচ হাজার মানুষের খাবারের দায়িত্ব নিয়েছেন হরভজন সিং।

আরও পড়ুনঃপ্রধানমন্ত্রীর ডাকে সাড়া দিয়ে প্রদীপ জ্বাললেন ভারতীয় ক্রীড়া ব্যক্তিত্বরা, দিলেন একত্রিত লড়াইয়ের বার্তা

রবিবার রাতে প্রধানমন্ত্রীর ডাকে সাড়া দিয়ে আলো জ্বালিয়েছিলেন প্রাক্তন ভারতীয় ক্রিকেটার যুবরাজ সিং। ২০১১ বিশ্বকাপের নায় সেই কথা মনে করিয়ে বলেছিলেন, “দেশ আজ করোনায় বিপন্ন। আমাদের প্রত্যেকের উচিত, প্রধানমন্ত্রীর ডাকে সাড়া দেওয়া। তিনি ন’মিনিট ধরে আলো জ্বালানোর নির্দেশ দিয়েছেন। আমরা প্রত্যেকে সেই ডাকা সাড়া দিয়ে বুঝিয়ে দেব, সকলে আমরা এক।” একইসঙ্গে দেশের বিপদের দিনে পাশে দাঁড়াতে প্রধানমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিলে ৫০ লক্ষ টাকা অনুদান দিয়েছেন যুবরাজ সিং।  করোনায় আক্রান্ত মানুষের পাশে প্রত্যেকের দাঁড়ানো বাঞ্ছনীয় ও আমাদের সকলের কর্তব্য বলেও জানিয়েছেন যুবরাজ সিং।

আরও পড়ুনঃফের করোনা টেস্ট পজেটিভ দিবালা ও তার বান্ধবীর, কিছুদিন আগেই সেরে উঠেছিলেন তারা

আরও পড়ুনঃসমস্ত বিধিনিষেধ উঠে গেলেই আইপিএল আয়োজন করা উচিত,বললেন সঞ্জয় মঞ্জরেকর

অন্যদিকে, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর ডাকে সাড়া দিয়ে দ্বীপ জালিয়েছেন টিম ইন্ডিয়ার প্রাক্তন স্পিনার হরভজন সিংও। স্ত্রী গীতা বেসরার সঙ্গে প্রদীপ জ্বালানোর একটি ছবি পোস্ট করেছেন ভাজ্জি। সেই সঙ্গে তিনি জানিয়ে দিয়েছেন, এখন থেকে প্রতিদিন অন্তত ৫ হাজার মানুষের রেশনের দায়িত্ব তিনি নেবেন। করোনা যুদ্ধে সকলকে এক হয়ে লড়াইয়ের বার্তাও দিয়েছেন সকলের প্রিয় ভাজ্জি। একইসঙ্গে সকলকে ঘরের থাকার অনুরোধের পাশাপাশি সুস্থ, সচেতন ও সতর্ক থাকার পরামর্শ দিয়েছেন হরভজন সিং। যুবরাজ ও হরভজন সিংয়ের উদ্যোগকে সাধুবাদ জানানো হয়ছে প্রসাসনের তরফে। একইসঙ্গে যুবি ও ভাজ্জির উদ্যোগকে কুর্নিশ জানিয়েছে তাদের অনুগামীরা।