তুরষ্কে গিয়ে রাজকীয় কায়দায় বিয়ে করেছেন নুসরত জাহান ও নিখিল জৈন। সম্প্রতি বিয়ে সেরে এসেই দিল্লি পাড়ি দিয়েছিলেন শপথ গ্রহণে উপস্থিত থাকবেন বলে। কিন্তু ইতিমধ্যেই কপোত কপোতী আলিপুরের এক বিলাস বহুল ফ্ল্যাটে  বাসা বেঁধেছেন নুসরত ও নিখিল। 

আলিপুরেই নিখিলের পৈতৃক বাড়ি। তার কাছেই নতুন একটি ফ্ল্যাট কিনেছেন নিখিল ও নুসরত। সেই ফ্ল্যাট নাকি নিজেই হাতে করে সুন্দর করে সাজিয়ে তুলছেন নুসরত। নুসরতকে ফ্ল্যাট সাজাতে সাহায্য করেছেন তাঁর ননদ ও শ্বশুরবাড়ির লোকজন। আজ, বুধবার দিল্লি থেকে ফিরছেন নুসরত ও নিখিল। ফিরে নতুন বাড়িতে বাসা বাঁধবেন তাঁরা। দুজনের নাম ও পদবীর অক্ষর যেহেতু এক, সেই জন্য পরস্পরকে এনজে বলে ডাকেন নুসরত নিখিল। 

প্রসঙ্গত, বসিরহাট থেকে বিপুল ভোটে জয়ী হওয়ার পরেই তিনি বিয়ের খবর ঘোষণা করেন। নিখিল জৈনের সঙ্গে গত বছর পুজোয় একটি শাড়ির বিজ্ঞাপন থেকে আলাপ এবং তার পরে প্রেম। তার পরেই বিয়ের সিদ্ধান্ত নেন দুইজনে। তুরষ্কে একদম ঘনিষ্ঠ আত্মীয় ও বন্ধুদের সাক্ষী রেখে বিয়ে করলেন তিনি। আগামী ৪ জুলাই কলকাতায় গ্র্যান্ড রিসেপশনের আয়োজন করেছেন নুসরত নিখিল। এই অনুষ্ঠানে রাজনীতির জগতের ও টলি পাড়ার অনেকেই আসবে বলে আশা করা যায়। 

বোদরুম থেকে ফিরেই বিমানবন্দরে সংবাদমাধ্যমের সামনে নুসরত বলেছিলেন, সন্দেশখালি শান্ত রয়েছে। দলের লোকজন এলাকার পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রেখেছেন। আমিও প্রশাসনের সঙ্গে যোগাযোগ রেখে সব কিছু নিয়ন্ত্রণে রেখেছি। 

আগামী ২৮ জুন নুসরত বসিরহাট যাবেন বলে জানিয়েছেন।